সিআইইউতে সামার সেমিস্টারের অনলাইন ক্লাস শুরু

প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০২০, ০০:০০

অনলাইন ডেস্ক

পাহাড়বেষ্টিত প্রকৃতির রাজকন্যা রাঙামাটিতে বাড়ি নার্গিস আক্তারের। ইংরেজি বিভাগে ভর্তি হওয়ার পর ভীষণ ইচ্ছা ছিল ক্যাম্পাসে বন্ধুদের সঙ্গে নতুন সেমিস্টারের ক্লাস শুরু করবেন। কিন্তু করোনা বাধা হয়ে দাঁড়ালে তার সেই ইচ্ছা যেন কিছুটা মলিন হয়ে যায়।

তবে চিটাগং ইনডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটির (সিআইইউর) ২০২০ সামার সেমিস্টারের প্রথম দিনের অনলাইন ক্লাসে ঢুকে বন্ধুদের মুখগুলো দেখতে পেয়ে ভীষণ খুশি নার্গিস। কেবল নার্গিস নন, তার মতো এমন আরো অনেক সহপাঠী বাড়িতে বসে ক্লাস শুরু করার পর আনন্দে ভেসেছেন অনেকক্ষণ। রোববার ৫ জুলাই সকাল থেকে সিআইইউর নিজস্ব সফটওয়্যার কোর্স ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড অপারেশন সিস্টেম (সিমস) ও গুগল মিটের মাধ্যমে নতুন সেমিস্টারের শিক্ষার্থীদের অনলাইন ক্লাস করেছে কর্তৃপক্ষ।

প্রসঙ্গত করোনা মহামারি ও নানা প্রতিকূলতাকে পেছনে ফেলে ২০২০ সামার সেমিস্টারে ভর্তি হয়েছেন এসব নতুন শিক্ষার্থী। বর্তমানে সিআইইউতে বিজনেস স্কুল, স্কুল অব সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং, স্কুল অব লিবারেল আর্টস অ্যান্ড সোশ্যাল সায়েন্সেস ও স্কুল অব ল প্রোগ্রামের অধীনে রয়েছে একাধিক সাবজেক্ট। গতকাল সকালে সিআইইউর বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষকদের কক্ষে ঢুকে দেখা যায়, শিক্ষার্থীরা না থাকলেও তাদের স্যাররা পুরোদমে ক্লাস নিচ্ছেন। কেউবা নোট দিচ্ছেন মনোযোগ দিয়ে। চট্টগ্রাম শহরের বাইরে সুদূর রাঙামাটি, সাতকানিয়া, কক্সবাজার থেকেও অনলাইনে যুক্ত হয়ে পড়া বুঝে নিয়েছেন নতুন ছাত্রছাত্রীরা।

সাইদুল নামের বিজনেস স্কুলের একজন শিক্ষার্থী বলেন, আমি এই মুহূর্তে নিরাপদে থাকার জন্য কক্সবাজার চলে এসেছি। এখান থেকে অনলাইনে স্যারদের সঙ্গে ক্লাসে যোগ দিচ্ছি। ভালোই লাগছে। নতুন অভিজ্ঞতা।

স্কুল অব লিবারেল আর্টস অ্যান্ড সোশ্যাল সায়েন্সেসের ডিন অধ্যাপক কাজী মোস্তাইন বিল্লাহ বলেন, নতুন শিক্ষার্থীদের ক্লাস করার আগ্রহ দেখে খুব-ই ভালো লাগছে। আশা করছি তারা এই আগ্রহ ধরে রেখে নিজেদের স্বপ্ন পূরণে এগিয়ে যাবে। এদিকে ২০২০ সামার সেমিস্টারে ভর্তি হওয়া নতুন শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে সিআইইউর উপাচার্য ড. মাহফুজুল হক চৌধুরী বলেন, তারুণ্য মানেই নতুন কিছু। আর নতুন শিক্ষার্থীরা করোনার মধ্যে আবারও প্রমাণ করল তারা শিক্ষার আলোয় আলোকিত করতে চায় পুরো বিশ^। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

 

"