বকশীগঞ্জ (জামালপুর) প্রতিনিধি

  ১২ সেপ্টেম্বর, ২০২১

প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে বন্ধ

বকশীগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেয়েছেন পূর্ণিমা আক্তার (১৪) নামের এক স্কুলছাত্রী। সে বকশীগঞ্জ উলফাতুন্নেছা সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় বকশীগঞ্জ পৌর শহরের চরকাউরিয়া সীমারপাড় এলাকায় বাল্যবিবাহটি বন্ধ করেন ইউএনও মুন মুন জাহান লিজা।

জানা গেছে, দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার বাহাদুরাবাদ ইউনিয়নের মাদারেরচর গ্রামের খোরশেদ আলমের ছেলে হাবিবুল্লাহ মুরাদের সঙ্গে বকশীগঞ্জ পৌর শহরের সীমার পাড় এলাকার বাবুল মিয়ার নাবালিকা মেয়ে পূর্ণিমা আক্তারের বিয়ে ঠিক হয়। সব প্রস্তুতি শেষে শুক্রবার সন্ধ্যায় বিয়ে সম্পন্ন করার কথা ছিল।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে ইউএনও মুন মুন জাহান লিজা বিয়ের বাড়িতে হানা দেন। মেয়েটির বয়স ১৮ বছর না হওয়ায় বিয়ের সব কার্যক্রম তাৎক্ষণিক বন্ধ করে দেন। এ সময় ১৮ বছরের আগে তাদের মেয়েকে আর বিয়ে দেবেন না মর্মে ইউএনওর কাছে লিখিত অঙ্গীকার করেন পূর্ণিমার বাবা ও মা।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close