প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ১০ অক্টোবর, ২০২১

আল-আকসায় ইহুদিদের প্রার্থনায় নিষেধাজ্ঞা বহাল

জেরুজালেমের আল-আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে ইহুদিদের প্রার্থনায় নিষেধাজ্ঞার আদেশ বহাল রেখেছে ইসরায়েলের একটি আদালত। এর মধ্য দিয়ে নিম্ন আদালতের একটি রায় খারিজ হলো। গত বৃহস্পতিবার ইসরায়েলের একটি ম্যাজিস্ট্রেট আদালত আল-আকসা কমপ্লেক্সে ইহুদিদের প্রার্থনার অনুমতি দেন। তার রায় প্রত্যাখ্যান করেন ফিলিস্তিনিরা এবং সমালোচনা শুরু হয় সর্বত্র। মুসলিম বিশ্বে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। খবর আলজাজিরার।

ইসরায়েলের রাবি আরিয়েহ লিপ্পো আল-আকসা কমপ্লেক্সে প্রার্থনা করায় সম্প্রতি তার ওপর সাময়িক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছিল। তিনি এ নিয়ে আদালতের দ্বারস্থ হলে জেরুজালেমের একটি নিম্ন আদালত ওই নিষেধাজ্ঞা খারিজ করে দেয়। ওই ম্যাজিস্ট্রেট ইহুদিদের আল-আকসা কমপ্লেক্সে নীরবে প্রার্থনা করার অনুমতি দেয়। তিনি রায়ে বলেন, সেখানে নিচুস্বরে তার প্রার্থনায় পুলিশের বিধিনিষেধ লঙ্ঘন হয়নি।

উল্লেখ্য, আল-আকসা বা বায়তুল মুকাদ্দাস মুসলিমদের তৃতীয় পবিত্রতম স্থান। ইহুদিদের কাছে এটি টেম্পল মাউন্ট নামে খ্যাত। তারাও এটিকে তাদের পবিত্র স্থান বলে দাবি করে। ইহুদিদের মসজিদ প্রাঙ্গণটি পরিদর্শনের অনুমতি রয়েছে কিন্তু সেখানে তারা প্রার্থনা বা কোনো ধর্মীয় রীতি পালন করতে পারবে না। এরপরও ওই ম্যাজিস্ট্রেট ইহুদিদের প্রার্থনার অনুমোদন দিয়ে রায় দেন। ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের রায়ে বলা হয়েছিল, ইহুদিরা চাইলে নীরবে প্রার্থনা করতে পারবে, এটি তাদের অপরাধ বলে গণ্য হবে না।

দীর্ঘদিন ধরে চুক্তির অধীনে মুসলিম ধর্মাবলম্বীরা আল-আকসায় নামাজ পড়েন এবং পশ্চিম দেয়ালে প্রার্থনা করেন ইহুদিরা। ফিলিস্তিনিদের অভিযোগ, আল-আকসা দখলের জন্যই এ রায় দেওয়া হয়েছে। এ নিয়ে উত্তেজনা তৈরি হওয়ার আশঙ্কায় নিম্ন আদালতের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে ইসরায়েলি পুলিশ আপিল করে।

শুক্রবার জেরুজালেমের ডিস্ট্রিক্ট কোর্টের বিচারক আরিয়েহ রোমানফ নিষেধাজ্ঞা বহাল রাখেন। তিনি বলেন, পুলিশের পদক্ষেপ যৌক্তিক ছিল।

ফিলিস্তিনিরা ছাড়াও জর্ডান, মিসর ও সৌদি আরব ইসরায়েলি নিম্ন আদালতের রায়ের সমালোচনা করেছিলেন। ফিলিস্তিনের প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ ইব্রাহিম স্তাইয়া ইসরায়েলের আদালতের আগের সিদ্ধান্তের পর আল-আকসা মসজিদ কমপ্লেক্সের পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে যুক্তরাষ্ট্রের দেওয়া প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের আহ্বান জানান। তিনি বলেন, পবিত্র আল-আকসা মসজিদে নতুন বাস্তবতা আরোপে ইসরায়েলি অপতৎপরতার আমরা বিরোধিতা করছি।

ইসরায়েল ১৯৬৭ সালে আল-আকসা মসজিদসহ পূর্ব জেরুজালেম দখল করে। তবে ইসরায়েলি কর্তৃপক্ষ উত্তেজনা ঠেকাতে আল আকসা প্রাঙ্গণে ইহুদিদের প্রার্থনা নিষিদ্ধ করেছে।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close