প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ১৯ মে, ২০২১

প্রবাসী আয়ে সপ্তম স্থানে বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস মহামারিতে যখন সারা বিশ্বেই মানুষের আয়-উপার্জনে কিছুটা মন্দা যাচ্ছে, সেখানে সব আশঙ্কা দূর করে প্রবাসী আয়ে এক ধাপ এগিয়ে এসেছে বাংলাদেশ। বিশ্বব্যাংকের প্রতিষ্ঠিত বহুপক্ষীয় ট্রাস্ট ফান্ড ‘গ্লোবাল নলেজ পার্টনারশিপ অন মাইগ্রেশন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্টের’ (নোমাড) সবশেষ প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৯ সালে অষ্টম অবস্থানে থাকলেও গেল বছরে প্রবাসী আয় বা রেমিট্যান্সে বাংলাদেশের অবস্থান সপ্তম। প্রতিবেদনে বলা হয়, বাংলাদেশ ২০২০ সালে ২২ বিলিয়ন ডলার (২ হাজার ২০০ কোটি ডলার) বা ১ লাখ ৮৪ হাজার ৮০০ কোটি ডলার রেমিট্যান্স বা প্রবাসী আয় পেয়েছে; যা মোট জিডিপির ৬ দশমিক ৬ শতাংশ। এর আগে ২০১৯ সালে মোট প্রবাসী আয় ছিল ১৮ দশমিক ৩৬ বিলিয়ন ডলার। অর্থাৎ ২০১৯ সালের তুলনায় রেমিট্যান্স বেড়েছে ১৮ দশমিক ৪ শতাংশ।

মহামারির কারণে বিশ্বব্যাপী প্রবাসী আয়প্রবাহ প্রায় দেড় শতাংশের মতো কমে গেছে। মহামারির মধ্যে বিশ্বের অনেক দেশেই রেমিট্যান্স কমে গেলেও বাংলাদেশসহ দক্ষিণ এশিয়ার বেশ কয়েকটি দেশে রেমিট্যান্স বেড়েছে। সেখানে দক্ষিণ এশিয়ায় প্রবাসী আয়ের প্রবৃদ্ধি হয়েছে ৫ দশমিক ২ শতাংশ বা প্রায় ১৪৭ বিলিয়ন ডলার।

------
এরমধ্যে ২০২০ সালে নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোর মধ্যে ৮৩ বিলিয়ন ডলার প্রবাসী আয় নিয়ে শীর্ষস্থানে রয়েছে ভারত। ৬০ বিলিয়ন ডলার প্রবাসী আয় নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে চীন। এ ছাড়া ৪৩ বিলিয়ন ডলার নিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছে মেক্সিকো, ৩৫ বিলিয়ন ডলার নিয়ে চতুর্থ ফিলিপাইন, ৩০ বিলিয়ন ডলার নিয়ে পঞ্চম মিসর এবং ২৬ বিলিয়ন ডলার নিয়ে পাকিস্তান রয়েছে ষষ্ঠ স্থানে। তবে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, প্রবাসী আয় বাড়লেও তার প্রভাব পড়েনি পারিবারিক পর্যায়ে। তাছাড়া করোনাভাইরাসের কারণে বৈধ পথে পাঠানো প্রণোদনা, অনানুষ্ঠানিক চ্যানেল বন্ধ হয়ে যাওয়া ইত্যাদি কারণে সামষ্টিক পর্যায়ে প্রবাসী আয় বেড়েছে।

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, গত বছর করোনাভাইরাসের কারণে হজ অনুষ্ঠিত না হওয়ায় মধ্যপ্রাচ্যে অবস্থানরত শ্রমিকরা তাদের জমানো টাকা দেশে ফেরত পাঠিয়ে দিয়েছিলেন। বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের প্রবাসী আয় বৃদ্ধির পেছনে এটি একটি বড় কারণ। তাছাড়া ২০২০ সালে বন্যার কারণেও অনেক প্রবাসীই অতিরিক্ত টাকা পাঠিয়েছিলেন।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close