চূড়ান্ত বিতর্কেও জয়ী বাইডেন

প্রকাশ : ২৪ অক্টোবর ২০২০, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দ্বিতীয় মেয়াদের প্রত্যাশী রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প ও ডেমোক্রেট প্রার্থী জো বাইডেনের মধ্যে শেষ প্রেসিডেনশিয়াল বিতর্ক হয়ে গেল বাংলাদেশ সময় শুক্রবার ভোরে। এই চূড়ান্ত বিতর্ক অনুষ্ঠানে প্রতিদ্বন্দ্বী দুই প্রার্থীর জয়-পরাজয়ের হিসাব কষে দৌদুল্যমান অনেক ভোটার সিদ্ধান্ত নেন কাকে ভোট দেবেন। দর্শকের মতে, এই বিতর্কেও জিতেছেন জো বাইডেন। দর্শকদের ওপর গণমাধ্যমসহ বিভিন্ন সংস্থার তাৎক্ষণিক চালানো জরিপে উঠে এসেছে বিতর্কে ট্রাম্পের পরাজয়ের কথা। খবর সিএনএনের।

টেনেসি অঙ্গরাজ্যের ন্যাশভিলের বেলমন্ট ইউনিভার্সিটিতে চূড়ান্ত বিতর্কে মুখোমুখি হন ট্রাম্প ও বাইডেন। শেষ বিতর্কের দর্শকদের মতামতের ভিত্তিতে সিএনএন ইনস্ট্যান্ট পোল জানিয়েছে, দ্বিতীয় ও শেষ বিতর্কে জয়লাভ করেছেন জো বাইডেন। শেষ বিতর্কে করোনাভাইরাস, জলবায়ু পরিবর্তন, বর্ণবাদ ও অভিবাসন ইস্যু প্রাধান্য পেয়েছে। এসব ইস্যুতে পরস্পরের সমালোচনা করছেন ট্রাম্প ও বাইডেন, করেছেন পাল্টাপাল্টি আক্রমণ।

জরিপ অনুযায়ী, ৫৩ শতাংশ দর্শক বলেছেন, শেষ বিতর্কে বাইডেন জয়লাভ করেছেন। অন্যদিকে, ৩৯ শতাংশ দর্শক বলেছেন, এই বিতর্কে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প জিতেছেন।

প্রথম বিতর্কের চেয়ে এই বিতর্কে ট্রাম্প তুলনামূলক শান্তশিষ্ট ছিলেন বলেই মনে করছেন ভোটাররা। তবে মিথ্যা বলেছেন বেশি। জরিপ অনুযায়ী, ট্রাম্প বাইডেনকে আক্রমণ করে যেসব কথা বলেছেন, সেটি সঠিক মনে করছেন ৫০ শতাংশ দর্শক। অন্যদিকে অনুচিত মনে করছেন ৪৯ শতাংশ দর্শক। আবার বাইডেন ট্রাম্পকে নিয়ে যেসব কথা বলেছেন, তা সঠিক মনে করছেন ৭৩ শতাংশ দর্শক আর অনুচিত বলে রায় দিয়েছেন ২৬ শতাংশ। এদিক থেকেও এগিয়ে রয়েছেন বাইডেন।

এছাড়া ডেটা প্রোগ্রেস জরিপ অনুযায়ী, বিতর্কে বাইডেনের জয়ের পক্ষে মত দিয়েছেন ৫২ শতাংশ দর্শক। ট্রাম্পের জয়ের পক্ষে মত দিয়েছেন ৪১ শতাংশ দর্শক। আরেক জরিপ সংস্থা ইউএস পলিটিকস অনুযায়ী, ৫২ শতাংশ দর্শক মনে করেন বিতর্কে বাইডেন জয়ী। আর ট্রাম্প জয়ী হয়েছেনÑ এমনটা মনে করেন ৩৯ শতাংশ দর্শক।

দুই প্রার্থীর মধ্যে প্রথম বিতর্কেও বাইডেন জয়ী হয়েছিলেন বলে বিভিন্ন জরিপে উঠে আসে। প্রথম বিতর্কের পর সিএনএন পোল জানায়, ২৮ শতাংশ দর্শক মনে করেন, সেই বিতর্কে ট্রাম্প জয়ী হয়েছেন। অন্যদিকে ৬০ শতাংশ দর্শক বাইডেনের জয়ের পক্ষে মত দেন।

তবে দুই প্রার্থীর মধ্যকার প্রথম বিতর্ক নিয়ে অনেক সমালোচনা হয়। কারণ সে বিতর্ক ছিল বিশৃঙ্খল ও ব্যক্তিগত আক্রমণে পরিপূর্ণ। সেই তুলনায় শেষ বিতর্কে উভয় প্রার্থীই ছিলেন অনেকটাই সংযত। সব ক্ষেত্রেই পরস্পরের প্রতি সম্মান রেখে কথা বলেছেন ট্রাম্প ও বাইডেন। বিতর্কে জয়-পরাজয় ভোটারদের মধ্যে প্রভাব ফেললেও আগামী ৩ নভেম্বরের পর জানা যাবে আসল বিজয়ী কে।

 

"