reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ৩০ নভেম্বর, ২০২২

রুশ নির্ভরতা কমাতে কাতারের সঙ্গে জার্মানির গ্যাস সরবরাহ চুক্তি

ছবি : সংগৃহীত

জার্মানির কাছে কাতারের তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) বিক্রির জন্য একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে কনোকোফিলিপস ও কাতার এনার্জি। মঙ্গলবার (২৯ নভেম্বর) রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা কিউএনএ (কাতার নিউজ এজেন্সি) এমন তথ্য জানিয়েছে। রুশ নির্ভরতা কমাতে জার্মান কর্তৃপক্ষ এখন কাতারের কাছ থেকে জ্বালানি কিনছে।

কাতার এনার্জি ও কনোকোফিলিপসের মধ্যে স্বাক্ষরিত ১৫ বছরের চুক্তির অধীনে ২০২৬ সালের জন্য নির্ধারিত প্রথম চালানের সঙ্গে জার্মানিতে ২০ লাখ টন এলএনজি সরবরাহ করা হবে।

কাতারের জ্বালানি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী সাদ শেরিদা আল-কাবি বলেন, "কাতার বাণিজ্যকে রাজনীতি থেকে আলাদা করেছে। আজ, জার্মানির কাছে তরলীকৃত গ্যাস বিক্রি করার জন্য একটি মার্কিন কোম্পানির সঙ্গে একটি চুক্তি হয়েছে।"

পর্যাপ্ত রাশিয়ান গ্যাস সরবরাহ না থাকায় দেশটির ওপর থেকে জ্বালানি নির্ভরতা কমাতে জার্মানি অন্যান্য উৎস ও এলএনজি দিয়ে তাদের চাহিদা মেটাচ্ছে। এ কারণে উত্তর ও বাল্টিক সাগরে বেশ কয়েকটি গ্যাস টার্মিনাল তৈরি করা হচ্ছে।

রাশিয়া ও ইরানের পরে কাতার বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম গ্যাস মজুদসহ একটি শীর্ষস্থানীয় এলএনজি রফতানিকারক। সম্প্রতি দেশটি চীনের সঙ্গে একটি দীর্ঘমেয়াদী গ্যাস চুক্তি স্বাক্ষর করেছে। চুক্তির দৈর্ঘ্য এবং মূল্য নির্ধারণের মতো মূল শর্তগুলোর বিষয়ে মতবিরোধ দীর্ঘমেয়াদী এলএনজি চুক্তি নিয়ে জার্মানি এবং কাতারের মধ্যে আলোচনাকে ছাপিয়ে গেছে। তবে বার্লিনও এখন রাশিয়া থেকে প্রাপ্ত জ্বালানি সরবরাহের বিকল্প চায়। ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনের সঙ্গে সংঘাত শুরু হওয়ার আগে রাশিয়া ছিলো জার্মানির বৃহত্তম গ্যাস সরবরাহকারী।

ইউক্রেনে যুদ্ধ শুরুর আগে রাশিয়া জার্মানির প্রাকৃতিক গ্যাসের চাহিদার ৫৫ শতাংশ সরবরাহ করছিল। সূত্র : ইয়েনি শাফাক

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
ইউক্রেন,যুদ্ধ,রাশিয়া,গ্যাস,জার্মানি,কাতার
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close