মসজিদের ছাদে যুবতীকে ধর্ষণের অভিযোগ, আত্মহত্যার চেষ্টা ধর্ষিতার

প্রকাশ : ২০ অক্টোবর ২০২০, ১৯:৩৯ | আপডেট : ২০ অক্টোবর ২০২০, ২০:০৩

টঙ্গী (গাজীপুর) প্রতিনিধি

গাজীপুরের টঙ্গীতে ১৮ বছর বয়সী এক যুবতীকে মসজিদে ডেকে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। রোববার সন্ধায় সাতাইশ গুশুলিয়া এলাকার উত্তর পাড়া জামে মসজিদে এ ঘটনা ঘটে। ধষণের পর নির্যাতিতা ঐ যুবতী বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন।

ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত মসজিদের ইমাম হাফেজ নাসির হাসান পলাতক রয়েছেন। এ ঘটনায় মসজিদ পরিচালনা কমিটির তিনজনকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করেছে পুলিশ।

স্থানীয়রা জানান, মসজিদের ভেতরের একটি কক্ষে ইমাম নাসির থাকতেন। অবসর সময়ে মসজিদের ছাদে তার রোপণ করা মরিচের চারা গাছ পরিচর্যা করেন তিনি। রোববার মাগরিবের নামাজ শেষে মসজিদের ইমাম নির্যাতিতা যুবতীকে মসজিদের ছাদে মরিচ বাগান দেখাতে ডেকে নিয়ে যান। পরে ছাদেই ধর্ষণ করেন।

ঘটনাটি জানাজানি হলে সোমবার বিকেলে স্থানীয়রা শালিসের আয়োজন করলে ইমাম পালিয়ে যান। এ ঘটনার একপর্যায়ে নির্যাতিতা যুবতী বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা চালান। পরে পরিবারের সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে গুশুলিয়া ইন্টান্যাশনাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে বর্তমানে তার চিকিৎসা চলছে। এ ঘটনায় নির্যাতিতার পরিবার গণমাধ্যমকর্মীদের কিছু জানান নি।

টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) এমদাদুল হক বলেন, ঘটনাটি শুনেছি, তবে ধর্ষণ নয় বলে দাবি এ কর্মকর্তার।

পিডিএসও/এসএম শামীম