নিজস্ব প্রতিবেদক

  ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১

সৌদিতে পণ্যের শুল্কমুক্ত সুবিধা চায় বাংলাদেশ

প্রধানমন্ত্রীর শিল্প উপদেষ্টা ও সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রীর বৈঠক

সৌদি আরবের বাজারে ১৩৭টি বাংলাদেশি পণ্যের শুল্কমুক্ত প্রবেশ সুবিধা প্রদানের বিষয়ে সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগবিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান। গতকাল সৌদির বাণিজ্যমন্ত্রী ড. মজিদ বিন আবদুল্লাহ আল কাসাবির সঙ্গে এক বৈঠকে এ অনুরোধ করেন তিনি। বর্তমানে সালমান এফ রহমান সৌদি আরবে সফর করছেন।

রিয়াদের বাংলাদেশ দূতবাসে অনুষ্ঠিত এ ভার্চুয়াল সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী, বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (বিডা) নির্বাহী চেয়ারম্যান মো. সিরাজুল ইসলাম, বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের (বেজা) নির্বাহী চেয়ারম্যান শেখ ইউসুফ হারুন ও বাংলাদেশ সরকারি-বেসরকারি অংশীদারিত্ব কর্তৃপক্ষের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) সুলতানা আফরোজ ও সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

সালমান এফ রহমান বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশ থেকে বিভিন্ন দেশ তৈরি পোশাক পণ্য, চামড়াজাত পণ্য, প্লাস্টিক পণ্য, হিমায়িত মাছ ও ওষুধ আমদানি করছে। সৌদি আরব চাইলে বাংলাদেশ থেকে হালাল মাংস আমদানির বিষয়ে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করতে পারে। বাংলাদেশ থেকে বিভিন্ন পণ্য আমদানির মাধ্যমে দুই দেশের মধ্যকার বাণিজ্যিক অসমতা দূর করা যেতে পারে বলে উল্লেখ করেন তিনি। বর্তমানে সৌদি আরব ও বাংলাদেশের মধ্যে ১৩০ কোটি ডলারের বাণিজ্য হয়ে থাকে। এ সময় প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা ২০১৮ সালে সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রীর বাংলাদেশ সফরের সময় দুই দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য বৃদ্ধির বিষয়ে স্বাক্ষরিত বিভিন্ন সমঝোতা চুক্তির পর্যালোচনা করে কার্যক্রম ত্বরান্বিত করার অনুরোধ করেন। একই সঙ্গে তিনি এ বিষয়ে তদারক করার জন্য একটি ওয়ার্কিং কমিটি গঠনেরও প্রস্তাব পেশ করেন। সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রীকে প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা জানান, সৌদি আরব চাইলে বাংলাদেশ সৌদি বিনিয়োগকারীদের জন্য বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠা করে বিশেষ সুযোগ-সুবিধা দিতে প্রস্তুত আছে। এ সময় ২০১৮ সালের প্রস্তাবিত সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের ব্যাপারে সালমান এফ রহমান অনুরোধ জানালে ড. মজিদ বিন আবদুল্লাহ আল কাসাবি দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করার আশ্বাস দেন।

সালমান এফ রহমান এ সময় সৌদি পাবলিক ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডের আওতায় বাংলাদেশে বিনিয়োগের বিষয়ে অনুরোধ জানালে সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রী ইতিবাচক মত দেন। এ তহবিলের আওতায় বাংলাদেশে ঢাকা থেকে পায়রা বন্দর পর্যন্ত রেল সড়ক নির্মাণ ও কক্সবাজারকে আন্তর্জাতিক মানের পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে বিনিয়োগের আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা।

এ ছাড়া সৌদি আরবের বিদেশি অভিবাসীদের ব্যবসা-বাণিজ্য বৈধভাবে করার লক্ষ্যে সৌদি সরকারের গৃহীত ‘গোপনীয়তা বিরোধী আইন’-এর বিষয়ে উল্লেখ করে বাংলাদেশি যেসব অভিবাসী সৌদি আরবে ব্যবসা করছেন, তাদের সহায়তার জন্য সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ করেন সালমান এফ রহমান।

ড. মজিদ বিন আবদুল্লাহ আল কাসাবি বলেন, অভিবাসীদের বৈধভাবে ব্যবসা-বাণিজ্য করার জন্য সৌদি সরকার প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদান করেছে এ পরিপ্রেক্ষিতে সৌদি বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে সব ধরনের সুযোগ-সুবিধা প্রদান করা হবে। সৌদি বাণিজ্যমন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশ ও সৌদি আরবের মধ্যকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে সৌদি আরব অত্যন্ত গুরুত্ব দেয়।

উল্লেখ্য প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগবিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান উচ্চপর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তা ও একটি ব্যবসায়ী দল নিয়ে গতকাল সৌদি আরব সফরে গেছেন। এ সফরকালে তিনি দুই দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধির বিষয়ে বিভিন্ন উচ্চপর্যায়ের সরকারি ও বেসরকারি সভায় অংশ নেবেন।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close