ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি

  ১৩ অক্টোবর, ২০২১

স্বামীর নির্যাতনে অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীর মৃত্যু

কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে স্বামীর নির্যাতনে পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা এক গৃহবধূর মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। গত সোমবার বিকালে উপজেলার শিলখুড়ি ইউনিয়নের শালঝোড় গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, উপজেলার শিলখুড়ি ইউনিয়নের উত্তর ধলডাঙ্গা গ্রামের আবদুল গফুরের মেয়ে গোলাপী বেগমের সঙ্গে সাত-আট বছর আগে একই ইউনিয়নের শালঝোড় গ্রামের আবদুস ছামাদের ছেলে কফিল উদ্দিনের সঙ্গে বিয়ে হয়। বিয়ের পর দুটি সন্তান হলেও শৈশবেই মারা যায়। এ কারণে তাদের মধ্যে বনিবনা ছিল না। গত সোমবার বিকালে গোলাপীর সঙ্গে তার স্বামী কফিল উদ্দিনের ঝগড়া বাধে। ঝগড়ার একপর্যায়ে কফিল অন্তঃসত্ত্বা গোলাপীকে শারীরিক নির্যাতন ও তলপেটে লাথি মারলে সে অজ্ঞান হয়ে পড়ে। পরে স্থানীয় এক গ্রাম্য চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা করেন। অবস্থার অবনতি হলে গোলাপীকে সোমবার সন্ধ্যায় ভূরুঙ্গামারী হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক নাঈমা হক রিফাত জানান, গোলাপী বেগমকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়।

ওসি আলমগীর হোসেন জানান, ময়নাতদন্তের জন্য লাশ কুড়িগ্রাম মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close