তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক

  ১১ অক্টোবর, ২০২১

স্যামসাং ২৮ শতাংশ মুনাফা আশা করছে

প্রান্তিক হিসাবে ২৮ শতাংশ মুনাফা বৃদ্ধির আশা করছে স্যামসাং। মহামারির কারণে বিশ্বের অন্যান্য শিল্পর মতোই ধাক্কা খেয়েছিল প্রযুক্তি পণ্যের বাজার। সেই পরিস্থিতি কাটিয়ে এক প্রান্তিকে সর্বোচ্চ আয়ের প্রত্যাশা করছে দক্ষিণ কোরিয়ার ইলেকট্রনিক্স জায়ান্ট প্রতিষ্ঠানটি। স্যামসাং চলতি বছরের সর্বশেষ প্রান্তিকে রেকর্ড পরিমাণ আয়ের প্রত্যাশার কথা জানিয়েছে বৃহস্পতিবার। ৩০ সেপ্টেম্বর শেষ হওয়া প্রান্তিকে ১ হাজার ৩২০ কোটি ডলার মুনাফার প্রত্যাশা করছে প্রতিষ্ঠানটি। আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় যা ২৮ শতাংশ বেশি।

প্রযুক্তি বাজারে তিন মাস করে বছরে চারটি প্রান্তিক হিসাব করা হয়। এরমধ্যে সব প্রান্তিকের কেনাবেচা একরকম হয় না। উদাহরণ হিসেবে বলা চলে, বছরের শেষ প্রান্তিক, অর্থাৎ অক্টোবর-ডিসেম্বর প্রান্তিকে বড়দিনের কেনাকাটা যুক্ত হওয়ায় এই প্রন্তিকে উপহার পণ্য হিসেবে সাধারণত সবচেয়ে বেশি ইলেকট্রনিক পণ্য বিক্রি হয়। ফলে, বিক্রি তুলনা করার বেলায় পরপর দুটি প্রান্তিক তুলনা না করে একটি প্রান্তিকের সঙ্গে আগের বছরের একই প্রান্তিক তুলনা করার রেওয়াজ রয়েছে।

সর্বশেষ প্রান্তিকে প্রতিষ্ঠানের আয়ের পরিমাণ ৬ হাজার ১২০ কোটি ডলার ছাড়িয়ে যাবে বলে আশা করছে স্যামসাং। বলা হচ্ছে, স্যামসাংয়ের ইতিহাসে এক প্রান্তিকে আয়ের হিসাবে সর্বোচ্চ হবে এটি। ২০২০ সালের এক প্রান্তিকে সর্বোচ্চ আয়ের হিসাবে রেকর্ড গড়েছিল স্যামসাং। আশা করা হচ্ছে, ২০২১ সালে নিজের রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড গড়বে গ্যালাক্সি স্মার্টফোনের নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটি। আয় ও মুনাফা বৃদ্ধির কারণ ব্যাখ্যা করেনি স্যামসাং। তবে, প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট সিনেট বলছে, মহামারি চলাকালীন বিপুল সংখ্যক মানুষ ঘরে বসে কাজ করতে বাধ্য হওয়ায় চাহিদা বেড়েছিল স্যামসাংয়ের তৈরি চিপের। আর ওই খাত থেকেই স্যামসাংয়ের রেকর্ড আয়ের একটা বড় অংশ এসেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

অন্যান্য যেকোনো ডিভাইস নির্মাতার চেয়ে সংখ্যায় বেশি টেলিভিশন ও মোবাইল ফোন বিক্রি করে স্যামসাং। তবে অন্যান্য ডিভাইস নির্মাতাদের জন্য মেমোরি চিপ নির্মাণ স্যামসাংয়ের ব্যবসার একটি বড় অংশ। সাম্প্রতিক মাসগুলোতে বিশ্বব্যাপী ডেটা সেন্টারগুলোর চিপ চাহিদা বাড়ার কারণে বিক্রি বেড়েছে স্যামসাংয়ের তৈরি চিপগুলোর। জুলাই মাসেই স্যামসাং বলেছিল, ফাইভ-জি প্রযুক্তিতে ভর দিয়ে স্মার্টফোনের বাজার চলতি বছরের দ্বিতীয়ার্ধে কোভিড পূর্ববর্তী অবস্থায় ফেরা শুরু করবে। প্রতিষ্ঠানটির সর্বশেষ প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করবে চলতি মাসের শেষ দিকে।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close