যুবলীগ নেতার ফেনসিডিল বেচাকেনার ভিডিও ভাইরাল

প্রকাশ : ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:৫৮ | আপডেট : ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১১:১২

টঙ্গী (গাজীপুর) প্রতিনিধি
ফেনসিডিল কিনছেন যুবলীগ নেতা বাবলু (মাস্ক পরিহিত)

গাজীপুরের টঙ্গীতে যুবলীগ নেতা হাজি মোহাম্মদ বাবলুর ফেনসিডিল বেচাকেনার একটি ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। তিনি ৫৪ নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক।

সোমবার সকাল থেকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিডিওটি ছড়িয়ে পড়লে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়। যুবলীগের ভাবমূর্তি নষ্ট করায় স্থানীয় যুবলীগ নেতারা বাবলুর শাস্তি দাবি করেন।

জানা যায়, টঙ্গী থানা যুবলীগের সাত্তার মোল্লা কমিটি থাকাকালীন মোহাম্মদ বাবলুকে ৫৪ নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক করা হয়। দীর্ঘদিন ধরে নতুন কমিটি না হওয়ায় এখনো তিনি স্বপদে বহাল রয়েছেন। এই সুযোগে যুবলীগের নাম ভাঙিয়ে কলেজ গেট এলাকার ফুটপাতের অস্থায়ী দোকানপাট থেকে চাঁদাবাজিসহ মাদক বেচাকেনা ও সেবনের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ের বাবলু। প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে এসব অপকর্ম চালিয়ে যাওয়ার জন্য সম্প্রতি বাবলু নিজেকে অনলাইন নিউজ পোর্টালের সাংবাদিক পরিচয় দেওয়া শুরু করেন।

স্থানীয়রা জানান, বাবলু দীর্ঘদিন ধরে মাদক বেচাকেনা ও সেবনের সঙ্গে জড়িত। কিন্তু এতদিন ভয়ে কেউ তার বিরুদ্ধে মুখ খোলেনি। সোমবার সকালে ইসমাইল হোসেন পরাণ নামে এক ব্যক্তির ফেসবুক আইডি থেকে বাবলুর ফেনসিডিল বেচাকেনার ভিডিও ফেসবুকে পোস্ট করা হয়। মুহূর্তের মধ্যে ভিডিওটি ভাইরাল হয়।

ভিডিওতে দেখা যায়, মুখে মাস্ক পরিহিত যুবলীগ নেতা বাবলু টঙ্গীর কো-অপারেটিভ ব্যাংক মাঠ বস্তির মাদক সম্রাজ্ঞী আরফিনার ছোট ভাই শ্রাবণের কাছ থেকে ফেনসিডিল ক্রয় করছেন।

এদিকে ভাইরাল হওয়া ভিডিও যুবলীগ নেতা বাবলুর বলে নিশ্চিত করেছেন টঙ্গী থানা যুবলীগের সভাপতি সাত্তার মোল্লা। তিনি বলেন, আমি মাদককে সমর্থন করি না। মাদক বেচাকেনা ও সেবনের সঙ্গে জড়িত কাউকে সমর্থন করি না।

টঙ্গী পূর্ব থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুল ইসলাম বলেন, এ বিষয়টি আমার জানা নেই। জেনে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পিডিএসও/হেলাল