মুজিববর্ষেই রন্টি দাসের ‘মুজিব বাংলাদেশ’

প্রকাশ : ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০০:০০

বিনোদন প্রতিবেদক

একটি রিয়্যালিটি শোর মধ্য দিয়ে পেশাগতভাবে সংগীতে তার যাত্রা শুরু হলেও পেশাগত জীবনের শুরুতেই তিনি তার একেবারেই ভিন্ন কণ্ঠ দিয়ে শ্রোতা-দর্শককে মুগ্ধ করেছিলেন। দেবাশীষ বিশ্বাস পরিচালিত ‘শুভবিবাহ’ সিনেমায় কবির বকুলের লেখা ও শওকত আলী ইমনের সুর সংগীতে ‘হৃদয় যেখানে চাইছে হারাতে’ গানটি দিয়েই সারা বাংলাদেশের গানপ্রেমী শ্রোতা দর্শকের মধ্যে ভীষণ সাড়া ফেলেছিলেন রন্টি দাস। যে কারণে পরে সংগীত ভুবনে পেশাগতভাবে তার চলার পথটার খুব বেশি সংগ্রামের ছিল না। রন্টির গানের আলাদা কদর যেমন রয়েছে, শ্রোতা-দর্শকের কাছে ঠিক তেমনি কদর আছে তার প্রিয় প্রিয় সহকর্মীর কাছেও। যে কারণে রন্টি তার সমসাময়িক সংগীতশিল্পীদের চেয়ে একটু আলাদা। সব সময়ই ভালো কথার, ভালো সুরের গানের প্রতি ছিল তার দুর্নিবার আকর্ষণ। তবে সংগীত জীবনের পথচলায় এবার রন্টি দাস নিজেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে একটি গান লিখেছেন। মুজিববর্ষের শুরুতেই এই গানটি যদিও প্রকাশ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনার কারণে পিছিয়ে যায়। গানের শিরোনাম ‘মুজিব বাংলাদেশ’। গানটির সুর করেছেন রন্টি দাসেরই স্বামী সাইদ রহমান এবং সংগীতায়োজন করেছেন সুমন কল্যাণ। গানটির মিউজিক ভিডিও নির্মাণ করেছে আজব কারিগর। গানটি প্রসঙ্গে রন্টি দাস বলেন, ‘তথ্য প্রতিমন্ত্রী ড. মুরাদ হাসান স্যারের পৃষ্ঠপোষকতায় মুজিব বাংলাদেশ গানটি আমি করতে পেরেছি। যেহেতু করোনার কারণে গানটি প্রকাশ করা হয়নি। কিন্তু আমার ইচ্ছে আছে গানটি মুজিববর্ষেই অর্থাৎ চলতি বছরেই ডিসেম্বর মাসের মধ্যেই প্রকাশ করার। আমার নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলেই গানটি প্রকাশ করব। আমার বিশ্বাস এই গানটি মুজিববর্ষের অন্যতম একটি গান হিসেবেই বিবেচিত হবে।’ রন্টি দাস জানান, তার স্বামী সাইদের প্রথম অক্ষর এবং তার দুই সন্তান আরশি ও শাহবাজের প্রথম অক্ষর এবং তার নিজের নামের প্রথম অক্ষর নিয়ে তার ইউটিউব চ্যানেলের নাম রাখা হয়েছে ‘রাস’ ইউটিউব চ্যানেল। ছোটবেলায় রন্টি দাসের প্রথম গানে হাতেখড়ি তার মা সংগীতশিল্পী লাকি রানী দাস ও বোন বিউটি দাসের কাছে। পরে বিভিন্ন সময় তিনি গানে তালিম নিয়েছেন মো. হেলাল উদ্দিন, সুরবন্ধু অশোক চৌধুরী, ওস্তাদ অনুপ বড়–য়া ও মো. শোয়েব খানের কাছে। রন্টির প্রিয় সংঘীতশিল্পী রুনা লায়লা, সামিনা চৌধুরী, অ্যান্ড্র্রু কিশোর ও কুমার বিশ্বজিৎ। তার জীবনের প্রথম মৌলিক গান ছিল আসিফ ইকবালের লেখা ও নকীব খানের সুর সংগীতে ‘তুমি আজীবন শুধু জোছনার গান শোনালে’। রন্টির একক অ্যালবাম দুটি হচ্ছে ‘আনমনা মন’ ও ‘দর্পণ’। দুটি অ্যালবামই বাংলাদেশের বিখ্যাত একটি প্রযোজনা সংস্থা থেকে প্রকাশিত হয়।

তার শ্রোতাপ্রিয় গানের মধ্যে রয়েছে ‘দেখো আমারই খুশিতে’, ‘রং’, ‘অভিমানী সন্ধ্যা’, ‘রাতভর বৃষ্টি’ ইত্যাদি। ‘খোত দ্য সার্চ’, ‘কার্তুজ’, ‘অন্তরঙ্গ’, ‘দ্য স্পিড’, ‘বস্তির ছেলে কোটিপতি’, ‘পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেমকাহিনি’, ‘আগুনে পোড়া কান্না’ সিনেমাতেও প্লে-ব্যাক করেছেন তিনি। রন্টির বাবা সুবল কান্তি দাস। তার ভাই মিঠুন দাস একজন মিউজিসিয়ান।

 

 

"