দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

প্রকাশ : ২৩ এপ্রিল ২০১৮, ১০:৫৯ | আপডেট : ২৩ এপ্রিল ২০১৮, ১২:৫৭

অনলাইন ডেস্ক

সৌদিআরব ও যুক্তরাজ্যে আট দিনের সফর শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটে লন্ডন থেকে রওনা হয়ে সোমবার বেলা পৌনে ১১টায় তিনি সফরসঙ্গীদের নিয়ে ঢাকা পৌঁছান। রোববার রাতে লন্ডনের হিথ্রো বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে বিদায় জানান যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের হাই কমিশনার নাজমুল কাওনাইন। 

সৌদিআরবে বহুজাতিক সামরিক মহড়া গাল্ফ শিল্ড ওয়ানের সমাপনী অনুষ্ঠানে যোগদান শেষে গত সোমবার রাতে লন্ডনে আসেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এই সফরে তিনি কমনওয়েলথ সরকার প্রধানদের সম্মেলনে অংশগ্রহণের পাশাপাশি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেন। এছাড়া ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ, প্রধানমন্ত্রী টেরিজা মেসহ বিশ্ব নেতাদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।

জাতিসংঘের সর্বশেষ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনের মত কমনওয়েলথ সম্মেলনেও মিয়ানমারে নিপীড়িত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর অধিকার প্রতিষ্ঠায় উচ্চকণ্ঠ ছিলেন শেখ হাসিনা। রোহিঙ্গা সংকটের বিষয়টি এবার কমনওলেয়থ সরকার প্রধানদের সম্মেলনের ঘোষণাতেও গুরুত্ব পায়। মিয়ানমারের রাখাইনে রোহিঙ্গাদের দমন-পীড়নে জড়িতদের স্বাধীন তদন্তের মাধ্যমে বিচারের আওতায় আনার দাবি জানানো হয় ওই ঘোষণায়।

মঙ্গলবার কমনওয়েলথ উইমেনস ফোরামে প্রধান বক্তা হিসেব মূল বক্তব্য দেন শেখ হাসিনা। ওই দিনই আন্তর্জাতিক উন্নয়ন ও মানবিক ইস্যুতে যুক্তরাজ্যভিত্তিক থিঙ্ক ট্যাঙ্ক ওভারসিজ ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন তিনি। বুধবার কমনওয়েলথ বিজনেস ফোরাম আয়োজিত অধিবেশনে অংশ নেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী। বিকালে যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী টেরিজা মের সভাপতিত্বে কমনওয়েলথ সরকার প্রধানদের সঙ্গে শীর্ষ ব্যবসায়ীদের গোলটেবিল বৈঠকে বক্তব্য দেন। 

রাতে যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া নৈশভোজে অংশ নেন শেখ হাসিনা। বৃহস্পতিবার তিনি বাকিংহাম প্যালেসে কমনওয়েলথ রাষ্ট্র ও সরকার প্রধানদের অংশগ্রহণে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশ নেন। সম্মেলনের উদ্বোধন করেন রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ। ওই দিন কমনওয়েলথ রাষ্ট্র ও সরকার প্রধানদের কয়েকটি এক্সিকিউটিভ সেশনে অংশ নেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বিকালে তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেন। রাতে বাকিংহাম প্রাসাদে রানির দেওয়া নৈশভোজে অংশ নেন।

শুক্রবার কমনওয়েলথ সরকারপ্রধানদের সম্মেলনে শেখ হাসিনা তিনটি অধিবেশনে অংশ নেন। শনিবার ওয়েস্টমিনস্টার সেন্টার হলে আওয়ামী লীগ আয়োজিত সংবর্ধনায় যোগ দেন। সেখানে বক্তব্যে বাংলাদেশের আদালতে দণ্ডিত বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপারসন তারেক রহমানকে যেভাবেই হোক দেশে ফেরত আনার ঘোষণা দেন শেখ হাসিনা। এ বিষয়ে ব্রিটিশ সরকারের সঙ্গে আলোচনা হওয়ার কথাও তিনি জানান। প্রধানমন্ত্রী সেদিন সন্ধ্যায় রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের জন্মদিনের অনুষ্ঠানে যোগ দেন।

পিডিএসও/হেলাল