অনলাইন ডেস্ক
  ১৪ জানুয়ারি, ২০২১

সেতুর গার্ডারে ফাটল, ঢাকার সঙ্গে উত্তর ও দক্ষিণের সড়ক যোগাযোগ ব্যাহত

ঢাকার সাভারের সালেপুরে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে পাশপাশি দুটি সেতুর একটির নিচের গার্ডারে (ভিম) ফাটল দেখা দেওয়ায় রাজধানীর সঙ্গে দেশের উত্তর ও দক্ষিণাঞ্চলের সড়ক যোগাযোগ ব্যাহত হচ্ছে। সেতুর উভয় পাশে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে।

ঢাকা সড়ক ও জনপথ বিভাগের (সওজ) নির্বাহী প্রকৌশলীর কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, নব্বইয়ের দশকে সালেপুরে তুরাগ নদের ওপর পূর্ব ও পশ্চিম পাশে পাশপাশি দুটি সেতু নির্মাণ করা হয়। পূর্ব পাশের সেতু ব্যবহার হয় রাজধানীতে যানবাহন ঢোকার জন্য। আর পশ্চিম পাশের সেতু ব্যবহার হয় রাজধানী থেকে যানবাহন বের হওয়ার জন্য। বুধবার পূর্ব পাশের সেতুর নিচের গার্ডারে (ভিম) ফাটল দেখা দেয়। এর কয়েক ঘণ্টা পর বুধবার সন্ধ্যা থেকে ওই সেতুর ওপর দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়।

সাভার ট্রাফিক পুলিশ সূত্রে জানা যায়, সন্ধ্যায় সালেপুরে পূর্ব পাশের সেতু বন্ধ করে দিয়ে উভয় পাশের যানবাহন চলাচলের জন্য পশ্চিম পাশের সেতু চালু রাখা হয়। এর ফলে ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক হয়ে রাজধানীর সঙ্গে দেশের উত্তর ও দক্ষিণাঞ্চলের সড়ক যোগাযোগ ব্যাহত হতে থাকে।

সালেপুর সেতুর উভয় পাশে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। রাতে এই যানজট ৮ থেকে ১০ কিলোমিটার পর্যন্ত বিস্তৃত হয়ে পড়ে। তীব্র যানজটের কারণে উত্তর ও দক্ষিণবঙ্গগামী দূরপ্লালার কোচগুলো বিকল্প পথে রাজধানীর পাশের বেড়িবাঁধ হয়ে চলাচল শুরু করে। যানবাহনের চাপ বেড়ে যাওয়ায় বুধবার দিবাগত রাতে ওই সড়কেও তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়।

সাভার ট্রাফিকের পরিদর্শক আবদুস সালাম বৃহস্পতিবার সকাল আটটার দিকে বলেন, গতকাল সৃষ্টি হওয়া যানজট অব্যাহত আছে। পশ্চিম পাশের সেতু দিয়ে ওয়ানওয়ে পদ্ধতিতে যানবাহন চলাচল চালু রাখা হয়েছে। তবে গতকাল রাতের তুলনায় যানজটের তীব্রতা কিছুটা কম।

সড়ক ও জনপথ (সওজ) ঢাকার নির্বাহী প্রকৌশলী মুহাম্মদ শামীম আল-মামুন বলেন, গার্ডারে (ভিম) ফাটল দেখা দেওয়ায় পূর্ব পাশের সেতু ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। বড় ধরনের দুর্ঘটনা এড়াতে ওই সেতুর ওপর দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। সেতুর মেরামতকাজ চলছে। মেরামত করতে অন্তত তিন সপ্তাহ সময় লাগবে। মেরামতের পর যানবাহন চলাচলের জন্য সেতু খুলে দেওয়া হবে।

পিডিএসও/ জিজাক

যোগাযোগ,সেতু,গার্ডারে ফাটল
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close