প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ৩১ জুলাই, ২০২১

করোনা ভ্যাকসিনের তৃতীয় ডোজ দিচ্ছে ইসরায়েল

ইসরায়েলে ৬০ বছরের বেশি বয়সি নাগরিকদের করোনাভাইরাসের টিকার তৃতীয় ডোজ দেওয়া শুরু হচ্ছে। আগামীকাল রবিবার থেকে দেশটিতে টিকার তৃতীয় ডোজ দেওয়া হবে। এরই মধ্যে গতকাল শুক্রবার ইসরায়েলের প্রেসিডেন্ট আইজ্যাক হারজগ টিকার তৃতীয় ডোজ নেন। আসছে সেপ্টেম্বরে তার বয়স ৬১ বছর হবে। খবর বিবিসির।

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেত বলেন, আপাতত যাদের বয়স ৬০ বছরের বেশি, তারাই শুধু তৃতীয় ডোজ পাবেন। ইসরায়েলে প্রথম করোনা টিকার তৃতীয় ডোজ দেওয়া হচ্ছে। ৬০ বছরের বেশি বয়স্ক যারা পাঁচ মাস আগে টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন, তারাই তৃতীয় ডোজ নিতে পারবেন বলে উল্লেখ করেছেন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী। বিশ্বব্যাপী করোনার ডেলটা ধরন ছড়িয়ে পড়ার পর ফাইজারের টিকার তৃতীয় ডোজ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল ইসরায়েল।

প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেত বলেন, টিকা দেওয়ার ফলে করোনার বিরুদ্ধে শরীরে যে প্রতিরোধ ব্যবস্থা গড়ে উঠেছে, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তা দুর্বল হয়ে পড়েছে। এই প্রতিরোধ ব্যবস্থা আবারও শক্তিশালী করতে অতিরিক্ত এই ডোজ দেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়া তৃতীয় ডোজ নেওয়ার ফলে সংক্রমণের আশঙ্কা কমে আসবে এবং করোনায় আক্রান্ত হলেও শারীরিক জটিলতা কম হবে।

প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেত বলেন, দুর্বল রোগ প্রতিরোধক্ষমতাসম্পন্ন দুই হাজার ব্যক্তিকে এরই মধ্যে ফাইজারের টিকার তৃতীয় ডোজ দেওয়া হয়েছে। তাদের মধ্যে তেমন কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি। টিকাদানের দিক দিয়ে বিশ্বের দেশগুলোর মধ্যে বেশ এগিয়ে রয়েছে ইসরায়েল। গত বছরের ডিসেম্বরে ফাইজার-বায়োএনটেকের সঙ্গে চুক্তির পর জোরেশোরে টিকাদান কর্মসূচি শুরু করে দেশটি। ইসরায়েলে এখন পর্যন্ত টিকাটির দুই ডোজ পেয়েছেন ৫৫ শতাংশ নাগরিক। ব্যাপক হারে টিকা দানের কারণে ইসরায়েলে নাটকীয়ভাবে করোনার সংক্রমণ কমে আসে।

চলতি বছরের জুনে ইসরায়েল থেকে তুলে নেওয়া হয় সংক্রমণ রোধে জারি করা অনেক বিধিনিষেধ। এর কিছুদিন পরই আবার সংক্রমণের হার বাড়তির দিকে যায়। ফলে জনসমাগম হয়, এমন স্থানে মাস্ক পরার নির্দেশনা পুনরায় জারি করে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। ফিরিয়ে আনা হয় ‘হেলথ পাস’ কর্মসূচি।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close