reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ১৯ মে, ২০২২

এপ্রিলে খাদ্যপণ্যের দাম কমেছে

ছবি : সংগৃহীত

গত এপ্রিল মাসে দেশে খাদ্যপণ্যের দাম কমেছে। যার ফলে এপ্রিল মাসে খাদ্য খাতে মূল্যস্ফীতি কমেছে বলে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো (বিবিএস)।

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর এপ্রিল মাসের মূল্যস্ফীতির প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে। বিবিএস প্রতিবেদনটি তাদের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করেছে।

সংস্থাটি জানায়, গত মার্চের তুলনায় এপ্রিলে মূল্যস্ফীতি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬.২৯ শতাংশে। তবে খাদ্যপণ্যে মূল্যস্ফীতি কমেছে। শহর, গ্রাম ও জাতীয়ভাবে মূল্যস্ফীতি কমেছে এপ্রিল মাসে। গত মার্চ মাসের তুলনায় এপ্রিল মাসে দেশে খাদ্যপণ্যে মূল্যস্ফীতি হয়েছে ৬.২৪ শতাংশ। মার্চ মাসে এই হার ছিল ৬.৩৪ শতাংশে।

বিবিএস’র প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত মার্চের তুলনায় এপ্রিলে মূল্যস্ফীতি বেড়ে হয়েছে ৬.২৯ শতাংশ। যা মার্চ মাসে ছিল ৬.২২ শতাংশ। সেই সঙ্গে খাদ্যে মূল্যস্ফীতি কমলেও খাদ্যবহির্ভূত পণ্যে মূল্যস্ফীতি কিছুটা বেড়ে ৬ দশমিক ৩৯ শতাংশ হয়েছে। মার্চ মাসে এ খাতে মূল্যস্ফীতির হার ছিল ৬.০৪ শতাংশ।

গ্রামে মূল্যস্ফীতির হার কিছুটা বেড়ে ৬.৫৯ শতাংশে দাঁড়িয়েছে। মার্চ মাসে ছিল ৬.৫২ শতাংশে। খাদ্যে এপ্রিলে মূল্যস্ফীতি কমে হয়েছে ৬.৬৪ শতাংশ। যা মার্চ মাসে ছিল ৬.৭১ শতাংশ। এছাড়া এপ্রিলে খাদ্য বহির্ভূত ৬.৫০ শতাংশ। যা মার্চ মাসে ছিল ৬.১৫ শতাংশ।

শহরে মূল্যস্ফীতির হারও কিছুটা বেড়ে ৫.৭৫ শতাংশে দাঁড়িয়েছে। যা মার্চ মাসে ছিল ৫.৬৯ শতাংশে। খাদ্যে এপ্রিলে মূল্যস্ফীতি কমে হয়েছে ৫.৩১ শতাংশ। যা মার্চ মাসে ছিল ৫.৪৯ শতাংশ। এছাড়া এপ্রিলে খাদ্য বহির্ভূত খাতে মূল্যস্ফীতি হয়েছে ৬.২৫ শতাংশ। যা মার্চ মাসে ছিল ৫.৯০ শতাংশ।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
খাদ্যপণ্য,মূল্যস্ফীতি
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close