প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ১৩ অক্টোবর, ২০২১

বিশ্বে আরো সাড়ে ৫ হাজার মৃত্যু

সারা বিশ্বে মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৫ হাজার ৪৯৫ জন। একই সময়ে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৮৭ হাজার ২৫২ জন। এর আগের ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছিল ৪ হাজার ৫৩৭ জনের এবং শনাক্তের সংখ্যা ছিল ২ লাখ ৯৯ হাজার ৩৪১ জন। গতকাল সকাল সাড়ে ৮টায় আন্তর্জাতিক পরিসংখ্যানভিত্তিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটার থেকে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

নতুন মৃত্যুর ফলে বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৪৮ লাখ ৭২ হাজার ৪৪৭ জনে। শনাক্ত বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৩ কোটি ৯০ লাখ ১০ হাজার ২৬৪ জনে।

গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে সবচেয়ে বেশি করোনা শনাক্ত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। এ সময় দেশটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫০ হাজারের বেশি মানুষ। অন্য দিকে একদিনে মৃত্যুর শীর্ষে উঠে এসেছে রাশিয়া। দেশটিতে এক দিনে প্রায় এক হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

এ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪ কোটি ৫৩ লাখ ১৩ হাজার ৩৫৩। দেশটিতে এ ভাইরাসে মৃত্যু হয়েছে ৭ লাখ ৩৪ হাজার ৬১১ জনের। তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৩ কোটি ৩৯ লাখ ৮৪ হাজার ৪৭৯ জন। দেশটিতে করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৫০ হাজার ৯৯১ জনের।

তালিকার তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল। দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৬ লাখ ১২ হাজার ৬৬ জন আর সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে ২ কোটি ১৫ লাখ ৮২ হাজার ৭৩৮ জনের। তালিকার পরের স্থানগুলোতে রয়েছে যুক্তরাজ্য, তুরস্ক, রাশিয়া, তুরস্ক, ফ্রান্স, ইরান, আর্জেন্টিনা, স্পেন। ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব শনাক্ত হয়। এরপর দ্রুত দেশে দেশে ছড়িয়ে পড়ে ভাইরাসটি। গত বছরের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে ‘বৈশ্বিক মহামারি’ ঘোষণা করে।

স্কুলশিক্ষার্থীদেরও টিকা দেবে শ্রীলঙ্কা : স্কুলের শিক্ষার্থীদেরও টিকা দেওয়া শুরু করতে যাচ্ছে শ্রীলঙ্কা সরকার। আগামী সপ্তাহ থেকে করোনাভাইরাসের টিকা দেওয়া হবে শিক্ষার্থীদের। শ্রীলঙ্কার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, অক্টোবরের ২১ তারিখ থেকে স্কুলের শিশুদের টিকা দেওয়ার কার্যক্রম শুরু হবে। যাদের বয়স ১৮-১৯ প্রাথমিকভাবে তাদের টিকা দেওয়া হবে। তাদের শুধু ফাইজারের টিকা দেওয়া হবে বলে জানায় কর্তৃপক্ষ।

দেশটিতে ২০ বছরের ওপরের সবাই এক ডোজ টিকা গ্রহণ করেছে। পাশাপাশি দুই ডোজ টিকা নিয়েছে ৮২ শতাংশ মানুষ। করোনায় মৃত্যু এবং শনাক্তের হার কমার পর অক্টোবরের শুরু থেকেই লকডাউন তুলে নেয় শ্রীলঙ্কা সরকার। তবে দেশটিতে করোনার বিধিনিষেধ এখনো চালু আছে। বন্ধ আছে ট্রেন যোগাযোগ ব্যবস্থা ও জনসমাগমের মতো কর্মসূচি।

এর আগে শিশুদেরও করোনাভাইরাসের টিকা দেওয়া শুরু করে কিউবা। দুই বছর বা তার ঊর্ধ্বে সব শিশুকে টিকার আওতায় আনা হচ্ছে বলে জানিয়েছে দেশটি। ভয়েস অব আমেরিকার এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, কিউবা তাদের জনগণকে নিজেদের তৈরি টিকাই দিচ্ছে।

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close