সালাহ্উদ্দিন শুভ, কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার)

  ২৯ নভেম্বর, ২০২০

বিয়ের দাবিতে প্রেমিকার অবস্থানের ৭দিন পর প্রেমিক আটক

প্রেম করার অন্তসত্ত্বা হয়ে পড়েন প্রেমিকা। তাইতো বিয়ের দাবি নিয়ে গত ৭ দিন ধরে প্রেমিকের বাড়ির বারান্দায় অবস্থান করছিল প্রেমিকা জ্যোতি রবিদাস (১৯)। এ ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে রোববার বিকেলে পুলিশ প্রেমিক সন্তোষ যাদবকে (২২) আটক করে। 

জানা যায়, কমলগঞ্জের শমশেরনগর চা বাগানের রবিদাস টিলা শ্রমিক বস্তির জ্যোতি রবিদাসের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল আদমটিলা শ্রমিক বস্তির সন্তোষ যাদবের। সন্তোষ যাদব প্রেমিকা জ্যাতিকে বিয়ে করতে অপারগতা প্রকাশ করলে ও অন্যত্র বিয়ের উদ্যোগ নিচ্ছে জেনে প্রেমিকা সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় এসে প্রেমিক সন্তোষের বাড়ি প্রাঙ্গণে অবস্থান নেয়। বিষয়টি টের পেয়ে আগেই প্রেমিক সন্তোষ বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়।

এভাবে টানা ৭ দিন প্রেমিকের বসতঘরের বারান্দায় অবস্থানের পর জ্যোতি রবিদাস কমলগঞ্জ থানায় একটি লিকিত অভিযোগ দিলে রোববার শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশ সদস্যরা পালিয়ে থাকা সন্তোষ যাদবকে আটক করে।

অবস্থানকারী জ্যোতি রবিদাস বলেন, গত কয়েক বছর ধরে সন্তোষ যাদবের সাথে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এখন সে ২ মাসের অন্তসত্ত্বা। সন্তোষ ও তার পরিবারের লোকজন বিয়ের বিষয় শেষ করে তাকে ঘরে তুলে নিতে হবে। এটার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত রোববার বিকাল পর্যন্ত তিনি এ বাড়িতে অবস্থান করেছিল।

তিনি আরও জানান, শমশেরনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, চা বাগান পঞ্চায়েত কমিটি ও পুলিশ কর্মকর্তারা ছেলের পরিবারের সাথে কথা বলার পরও কোন সমাধান না হওয়ায় রোববার কমলগঞ্জ থানায় প্রেমিক সন্তোষকে আসামি করে একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছিল। 

শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক মোশারফ হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, জ্যোতি রবিদাসের লিখিত অভিযোগে প্রেমিক সন্তোষ যাদবকে আটক করা হয়েছে।

পিডিএসও/এসএম শামীম

 

অবস্থান,প্রেমিক আটক
আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়