প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ২৬ নভেম্বর, ২০২১

গণতন্ত্র সম্মেলনে তাইওয়ানকে আমন্ত্রণ

যুক্তরাষ্ট্রের ওপর ক্ষুব্ধ চীন

গণতন্ত্র সম্মেলনে তাইওয়ানকে আমন্ত্রণ জানানোয় যুক্তরাষ্ট্রের ওপর ক্ষুব্ধ চীন। এমন কাজ করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ‘ভুল’ করেছেন বলে মন্তব্য করেছে চীন সরকার।

যুক্তরাষ্ট্রে আগামী মাসে অনুষ্ঠিত হবে ‘গণতন্ত্রের জন্য সম্মেলন’। আর এতেই তাইওয়ানকে আমন্ত্রণ জানিয়েছে প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের প্রশাসন।

গত মঙ্গলবার আমন্ত্রিত দেশগুলোর যে তালিকা প্রকাশ করেছে তারা, সেখানে তাইওয়ানের নাম দেখা গেছে।

‘দ্য গার্ডিয়ান’ পত্রিকা জানায়, চীনের তাইওয়ান অ্যাফেয়ার্স অফিসের মুখপাত্র ঝু ফেংলিয়ান বলেছেন, ‘এই সম্মেলনে তাইওয়ানকে অন্তর্ভুক্ত করা একটা ভুল পদক্ষেপ। বেইজিং চীনের তাইওয়ান অঞ্চল এবং যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে সরকারি পর্যায়ে কোনোরকম মিথস্ক্রিয়ার বিরোধিতা করছে। এই অবস্থান খুবই স্পষ্ট এবং ন্যায়সঙ্গত। আমরা ?যুক্তরাষ্ট্রকে এক চীন নীতিতে অটল থাকার আহ্বান জানাচ্ছি।’

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট পদে আসীন হওয়ার পর থেকে বাইডেন এবং হোয়াইট হাউস এক চীন নীতিতে দীর্ঘদিনের সমর্থন ধরে রাখলেও তাইওয়ান প্রণালিতে শান্তি ও স্থিতিশীলতা ক্ষুণ্ন করা কিংবা স্থিতাবস্থা পরিবর্তনের একতরফা কোনো প্রচেষ্টার ঘোর বিরোধিতা করে আসছে।

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে নিজের প্রথম পররাষ্ট্র নীতি সংক্রান্ত ভাষণে বাইডেন বলেছিলেন, তিনি চীন ও রাশিয়ার নেতৃত্বাধীন কর্তৃত্ববাদী শক্তিগুলোর মোকাবেলায় যুক্তরাষ্ট্রকে বৈশ্বিক নেতৃত্বের আসনে নিয়ে যেতে চান।

মার্কিন প্রেসিডেন্টের চাওয়া অনুযায়ী আগামী মাসে অনুষ্ঠেয় প্রথম গণতন্ত্র সম্মেলনটি একই সঙ্গে তার জন্য একটি বড় পরীক্ষাও। বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন অধিকার ও স্বাধীনতার ক্ষয় এবং গণতান্ত্রিক পশ্চাদপসরণ ঠেকাতে সহায়তার লক্ষ্যে ৯ ও ১০ ডিসেম্বেরের এ ভার্চুয়াল সম্মেলনে আমন্ত্রিত ১১০টি দেশের মধ্যে চীন ও রাশিয়া নেই। এমন একসময়ে তাইওয়ান যুক্তরাষ্ট্রের আয়োজিত এ সম্মেলনে আমন্ত্রণ পেল যখন চীন স্বশাসিত দ্বীপটির সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন বা সীমিত করতে বিভিন্ন দেশের ওপর চাপ বাড়াচ্ছে। বেইজিং চায় না, কোনো দেশ তাইওয়ানকে রাষ্ট্রের মর্যাদা দিক। তবে স্বশাসিত তাইওয়ানের ভাষ্য, তাদের নিয়ে কথা বলার কোনো অধিকার বেইজিংয়ের নেই।

চলতি মাসের শুরুতে বাইডেন ও চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের মধ্যে হওয়া ভার্চুয়াল বৈঠকে তাইওয়ান প্রসঙ্গে দুই নেতার অবস্থানে পার্থক্য দেখা গেছে। শি বলেছেন, তাইওয়ানের স্বাধীনতা যারা চাইছে এবং যুক্তরাষ্ট্রে তাদের সমর্থকরা ‘আগুন নিয়ে খেলছে’।

এবার গণতন্ত্র সম্মেলনে তাইওয়ানের আমন্ত্রণ পাওয়া নিয়ে চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ঝাও লিজিয়ান বেইজিংয়ে সাংবাদিকদের কাছে প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র গণতন্ত্রকে হাতিয়ার করে নিজেদের ভূ-রাজনৈতিক উদ্দেশ্য সাধন করা, বিভিন্ন দেশের বিরুদ্ধে চাপ প্রয়োগ করা, বিশ্বকে বিভক্ত করা এবং স্বার্থ হাসিলের চেষ্টা চালাচ্ছে।’

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close