অনলাইন ডেস্ক
  ২৭ নভেম্বর, ২০২০

এক আঁটি হেমন্ত

শ্রাবণী প্রামাণিক

যখন প্রবল তপ্ত থাকি ভেতরে

তৃষিত ভূমির ফাটলে লাঙল চষে না মাটি

------
তখন আমার ভেতরে তুমি টুপটাপ ঝরাও শিশির

 

কখনো প্রবল বর্ষণ হয় ভেতরে

নরম মাটির ধস নামে পরতে পরতে

তখন মিঠে মিঠে রোদ হয়ে আঁকড়ে নিও আমাকে

 

খরা-ভাদর পেরিয়ে ক্ষুধার তোরঙ্গে

শাঁস-মজ্জা মিশে যায় নাড়িতে

বেনামি সোনারং পাকা শিষে

নাক-গলা-চোখ শেষে

ভাতের বাস ভাসে খুলির তারে তারে

শাসবায়ুতে মিশে যৌবন হিল্লোল তোলে

ঘুম নয়, আবেশ ভর করে

সোনা ধানের খোলসে তোমার দেহ

নতুন খড়ের ছায়ে মৃদু মৃদু কাঁপে

শব্দ-গন্ধ-লাজে

এক আঁটি নিশি ভোর করে আনি।

 

 

"

আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়