বড়াইগ্রাম (নাটোর) প্রতিনিধি

  ১৪ অক্টোবর, ২০২২

বড়াইগ্রামে ফিল্মি স্টাইলে ২ সন্ত্রাসী আটক

ছবি : প্রতিদিনের সংবাদ

দুই সন্ত্রাসীকে খুঁজে বেড়াচ্ছিল পুলিশ। মোটরসাইকেলে যাওয়ার পথে পুলিশের নজরে পড়ে। পুলিশ থামতে নির্দেশ দেয়। কিন্তু সন্ত্রাসীরা মোটরসাইকেল নিয়ে দ্রুত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। মোটরসাইকেল নিয়ে তাদের পিছু নেয় নাটোর সদর থানার এসআই জামাল উদ্দিন। ৩০ কিলোমিটার পিছু ধাওয়া করে জেলার শেষ প্রান্তে বড়াইগ্রামের শ্রীরামপুর থেকে তাদের আটক করতে সক্ষম হয় পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (১৩ অক্টোবর) রাত ৩টার দিকে তাদের আটক করা হয়।

জানা যায়, নাটোর শহরের কান্দিভিটুয়া এলাকায় জামাল কাজী নামের এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে হাতের রগ কেটে দেয় মিল্টন ও সাইফুল নামে দুই সন্ত্রাসী। আহত জামাল কাজীকে প্রথমে নাটোর সদর হাসপাতালে ও পরে অবস্থার অবনতি হলে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

ঘটনা জানার পরপরই নাটোর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নাছিম আহম্মেদের তত্ত্বাবধানে অভিযানে নামে এসআই জামাল উদ্দীন ও সঙ্গীয় ফোর্স। তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় রাত ২টায় তারা নিশ্চিত হন সন্ত্রাসীরা শহরতলীর বড়ভিটা এলাকায় অবস্থান করছে। সেখানে অভিযান চালালে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে মোটরসাইকেল নিয়ে পালাতে থাকে দুই সন্ত্রাসী। এসআই জামাল উদ্দীন ও সঙ্গীয় ফোর্স মোটরসাইকেল নিয়ে তাদের পেছনে ধাওয়া করে। একটা সময় সন্ত্রাসীরা নাটোর-ঢাকা মহাসড়ক দিয়ে দ্রুত পালানোর চেষ্টা করলে পিছু ধাওয়া করেন ওই পুলিশ কর্মকর্তা। একপর্যায়ে বড়াইগ্রামের শ্রীরামপুর এলাকায় তাদের মোটরসাইকেল গতিরোধ করে আটক করতে সক্ষম হন তিনি। আটকরা নাটোর শহরে মল্লিকহাটি মহল্লার বাসিন্দা। তাদের শুক্রবার বিকালে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে নাটোর জেলহাজতে প্রেরণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে থানা পুলিশ।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
বড়াইগ্রাম,আটক
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close