টঙ্গী (গাজীপুর) প্রতিনিধি

  ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২

টঙ্গীতে প্রতিমার গায়ে রঙের আঁচড়

ছবি : প্রতিদিনের সংবাদ

হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দুর্গাপূজা উপলক্ষে টঙ্গীর মণ্ডপে মণ্ডপে পূজার সব প্রস্তুতি এরই মধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। ১ অক্টোবর থেকে ষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে শুরু হবে শারদীয় দুর্গোৎসব। পূজা উদযাপন কমিটির তথ্যমতে, টঙ্গী পুর্ব ও পশ্চিম থানায় ৯টি পূজামণ্ডপে দুর্গোৎসব পালিত হবে। এর মধ্যে পূর্ব থানায় ৭টি এবং পশ্চিম থানায় ২টি। এসব পূজামণ্ডপে ১ অক্টোবর থেকে পূজার আনুষ্ঠানিকতা শুরু হবে। পূজামণ্ডপে বাড়তি স্বেচ্ছাসেবক দিয়ে নিরাপত্তা জোরদার করা হবে বলে কমিটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

টঙ্গীর কয়েকটি মন্দিরে গিয়ে দেখা যায়, মঞ্চ তৈরি ও প্রতিমার শরীরে কাপড় পরানোর কাজে ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা। প্রতিমাকে শেষবারের জন্য সুন্দর করে সাজিয়ে নিচ্ছেন তারা। মন্দিরের চারপাশও সাজানো হয়েছে বাহারি নকশায়। মন্দিরের প্রধান গেটসহ অন্য জায়গাগুলোও বর্ণিল হয়ে সেজে উঠেছে।

টঙ্গীর পূজামন্ডপগুলোতে গিয়ে দেখা যায়, পূজামন্ডপে সাজসজ্জার কাজ শেষ পর্যায়ে। পূজারি ও দর্শনার্থীরা প্রতিমা দেখতে আসছেন। তবে প্রতিমাকে সুন্দর করে সাজিয়ে কাপড়ে ঢেকে রাখা হয়েছে। প্রতিমা ঢেকে রাখা হয়েছে। কেউ জানতে চাইলে আয়োজক কমিটির সদস্যরা বলেন, প্রতিমা সাজানোর কাজ শেষ। এখনই তা উন্মুক্ত করে দিলে সবাই ভিড় করবেন। কিন্তু এখনও কিছু সাজসজ্জার কাজ চলছে।

সার্বজনীন শ্রীশ্রী দুর্গামন্দিরে এক পূজারি জতিন চন্দ্র রায় বলেন, এটিই সবচেয়ে বড় ধর্মীয় অনুষ্ঠান। এ উৎসব আনন্দের একটি উপলক্ষ। ১ অক্টোবর থেকে পূজা শুরু হচ্ছে। তবে এর মধ্যে উৎসবের আমেজ চলে এসেছে। তাই প্রতিমা দেখতে এসেছি।

বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের টঙ্গী থানা কমিটির সাধারণ সম্পাদক অমল চন্দ্র ঘোষ বলেন, প্রতিমা তৈরির কাজ প্রায় শেষ। কিছু কাজ এখনও বাকি। টঙ্গীতে ৯টি মণ্ডপে পূজা অনুষ্ঠিত হবে। পূর্ব থানায় সাতটি ও পশ্চিম থানায় দুটি পূজামণ্ডপ রয়েছে। সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী শারদীয় দুর্গাদেবীর পূজা-অর্চনা করা হবে। কমিটি যথাযথভাবে সরকারের বিধিনিষেধ বাস্তবায়নে সচেষ্ট থাকবে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রতি বছরের মতো এ বছরও নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ কমিশনার মাহবুব-উজ-জামান (অপরাধ দক্ষিণ) বলেন, পূজা কমিটির সাথে বসা হচ্ছে। পূজার জায়গাগুলোতে সিসিটিভি ও স্বেচ্ছাসেবকের ব্যবস্থা করার জন্য বলা হয়েছে। পূজার ভিতরে ও বাহির হওয়ার গেট আলাদা করার জন্য বলা হয়েছে। পূজাকে সামনে রেখে বিশেষ অভিযানের ব্যবস্থা করা হয়েছে। দুর্গোৎসব চলাকালে কোনো মণ্ডপে অপ্রীতিকর ঘটনা যাতে না ঘটে, তার জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
টঙ্গী,প্রতিমার গায়ে,রঙের আঁচড়
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close