বোদা (পঞ্চগড়) প্রতিনিধি

  ১৪ আগস্ট, ২০২২

বোদায় ছাত্রকে বলাৎকারের অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার

ছবি : প্রতিদিনের সংবাদ

পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলায় ১২ বছর বয়সী এক মাদ্রাসা ছাত্রকে বলাৎকারের অভিযোগে আব্দুর রহিম (৩৮) নামের এক শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। ২৬ জুলাই (মঙ্গলবার) ওই মাদ্রাসা ছাত্রের বাবা বোদা থানায় ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা করেন। মামলার প্রেক্ষিতে শনিবার (১৩ আগস্ট) দুপুরে দিনাজপুর জেলার খানসামা উপজেলা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেন বোদা থানার ওসি সুজয় কুমার রায়।

গ্রেপ্তারকৃত মাদ্রাসা শিক্ষক আব্দুর রহিম দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার সনকা কাজল গ্রামের মৃত মনজু হোসেনের ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার চন্দনবাড়ী ইউনিয়নের চন্দনবাড়ী রহমানিয়া দারুচ্ছুন্নাত হাফিজিয়া মাদ্রাসায় এতিমখানা ও লিল্লাহ বোর্ডিং-এ থেকে পড়াশোনা করতো ভ‚ক্তভোগী ওই ছাত্র। ২-৩ মাস আগ থেকে মাদ্রাসা শিক্ষক আব্দর রহিম তাকে রুমে ডেকে পা চাপায় নেওয়ার কথা বলে বিভিন্ন প্রকার ভয়ভীতি দেখিয়ে বলাৎকার করতো। ২২ জুলাই (শুক্রবার) ভোরে ওই শিক্ষক কৌশলে তাকে আবার ভয় দেখিয়ে বলাৎকার করে। এরপর ব্যথায় কিছুটা অসুস্থ্যবোধ করতে শুরু করে ওই ছাত্র। ২৫ জুলাই (সোমবার) ওই ছাত্রের বাবা মাদ্রাসায় গেলে বাবাকে সব কিছু বলে দেয়। ছাত্রের বাবা বিষয়টি স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিদের অবহিত করে রাতেই বোদা থানায় লিখিত অভিযোগ করলে পুলিশ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করে। এদিকে অভিযোগ উঠলে ওই শিক্ষক আত্মগোপনে থাকে।

বোদা থানার ওসি সুজয় কুমার জানান, ওই মাদ্রাসা শিক্ষক আত্মগোপনে থাকায় পুলিশের পাশাপাশি র‌্যাব অভিযান পরিচালনা শুরু করে। এক পর্যায়ে শনিবার খানসামা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে বোদা থানায় র‌্যাব হস্তান্তর করে বলে জানান তিনি।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
বোদা,ছাত্রকে বলাৎকার,অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close