বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি

  ২৭ জানুয়ারি, ২০২২

বাউফলে একই গ্রামে দুই ঝুঁকিপূর্ণ সেতু

ছবি : প্রতিদিনের সংবাদ

পটুয়াখালীর বাউফল সদর ইউনিয়নের পূর্ব জৌতা গ্রামে মাত্র ১ কিলোমিটারের মধ্যে দুইটি ঝুঁকিপূর্ণ সেতু নিয়ে এলাকাবাসী চরম দুর্ভোগের পড়েছেন। প্রায় ১২ বছর ধরে এই সেতু দু’টি দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হচ্ছেন ওই এলাকার মানুষ। তবুও ঝুঁকিপূর্ণ সেতু মেরামতের কোনো উদ্যোগ নেই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ২০০২ সালে পূর্ব জৌতা গ্রামের ৭নং ওয়ার্ডে বাউফল-নওমালা খালের উপর ১ কিলোমিটারের ব্যবধানে দু’টি আয়রন সেতু নির্মাণ করা হয়। নির্মাণের কিছু দিনের মাথায় দুটি সেতুর স্লিপার ভেঙে চলাচল অযোগ্য হয়ে পড়ে। প্রয়োজনের তাগিদে ওই এলাকার মানুষ সেতু দু’টির উপর বাঁশের সাঁকো তৈরি করে প্রতিনিয়ত জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হচ্ছেন।

১০৪ নং পূর্ব জৌতা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষার্থী জানায়, প্রতিদিন ওই বিদ্যালয়ের শতাধিক শিক্ষার্থী ঝুঁকিপূর্ণ সেতু পারাপার হয়ে আসা-যাওয়া করে। সেক্ষেত্রে যেকোনো সময় হতাহতের ঘটনা ঘটতে পারে। আইয়ুব আলী, রহিম মৃধা ও শাকিলসহ একাধিক এলাকাবাসী বলেন, সেতু দু’টি মেরামতের দাবি দীর্ঘদিনের, কিন্তু কর্তৃপক্ষের বিষয়টি নিয়ে কোনো মাথাব্যথা নেই। এলাকাবাসীর উদ্যোগে আমরা সেতুর উপর বাঁশের সাঁকো তৈরি করে যাতায়াত করছি। আমরা দ্রুত সেতু দু’টি মেরামত করার দাবি করছি।

বাউফল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মোতালেব হাওলাদার প্রতিনিধিকে বলেন, আগামী ৭ ফেব্রয়ারী ওই ইউনিয়নে নির্বাচন। ভোটের আগে জনগণের সাময়িক চলাচলের জন্য আপাতত একটি সেতু মেরামতের ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে।

এ বিষয় এলজিইডির উপজেলা প্রকৌশলী মো. সুলতান হোসেন বলেন, বিষয়টি আমার জানা ছিল না। সেতু দুটি পরিদর্শন করে শিগগিরই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
পটুয়াখালী,বাউফল,দুই সাঁকো,সেতু,দুর্ভোগ
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close