শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি

  ১৪ জানুয়ারি, ২০২২

ছাত্রলীগ নেতাকে ধাওয়া করে পিটিয়ে হত্যা

অভিযোগ যুবলীগের নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে

ছবি : প্রতিদিনের সংবাদ

গাজীপুরের শ্রীপুরে যুবলীগের নেতাকর্মীরা ছাত্রলীগের এক নেতাকে প্রকাশ্যে ধাওয়া করার পর একটি পুকুরে পড়ে গেলে সেখানেই তাকে পিটিয়ে হত্যা করে। বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) রাতে উপজেলার কাওরাইদ বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত ছাত্রলীগ নেতার নাম নয়ন শেখ (৩০)। তিনি পাশের বেলদিয়া গ্রামের আবদুল কাদের শেখের ছেলে। নয়ন কাওরাইদ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি পদপ্রার্থী ছিলেন।

ঘটনা জানার পর পুলিশ সেখানে পৌঁছে পুকুর থেকে মরদেহ উদ্ধার করে। হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় রাত পৌনে ১১টায় পর্যন্ত জড়িত কাউক গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।

কাওরাইদ গ্রামের তরুণ রানা জানান, কাওরাইদ কে এন উচ বিদ্যালয় মাঠে ক্রিকেট খেলা হয়। খেলায় দুই পক্ষের খেলোয়াড়ের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় একটি পক্ষ আরেক পক্ষকে দায়ী করে নয়ন শেখকে সুরাহার জন্য জানায়। ঘটনার জন্য নয়ন কাওরাইদ ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা খায়রুল মীরের ছেলে অনুভব (১৪)-কে ডেকে তার অফিসে নিয়ে মারধর করেন। খাইরুল কাওরাইদ যুব পরিষদের সাধারণ সম্পাদক।

নয়নের বড় ভাই রতন শেখ জানান, ওই ঘটনায় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর কাওরাইদ বাজারে দেশীয় অস্ত্র হাতে মহড়া দেন খায়রুল মীরের কর্মীরা। পরে রাত সাড়ে ৮টার দিকে নয়ন শেখকে দলীর কার্যালয়ে প্রায় এক ঘণ্টা অবরুদ্ধ করে রাখেন তারা। একপর্যায়ে দলের কার্যালয়ের ভেতরে ঢুকে নয়নের ওপর হামলা চালান খায়রুলসহ তার লোকজন। সেখান থেকে দৌড়ে পালানোর সময় তাকে (নয়ন) ধাওয়া করেন তারা। ধাওয়ার পর পাশে থাকা রেলওয়ের একটি পুকুরে পড়ে গেলে সেখানে পিটিয়ে হত্যা করা হয় নয়নকে।

তবে অভিযাগ প্রসঙ্গে জানতে যুবলীগ নেতা খায়রুল মীরকে ফোন করা হলে বিপ্লব নামে একজন বলেন, হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে খায়রুল মীর কিংবা তার কোনো লোক জড়িত নন। খায়রুল নিজেই হামলার শিকার হয়ে গুরুতর অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

শ্রীপুর থানার ওসি ইমাম হোসেন বলন, খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে পৌছে পুকুর থেকে মরদেহ উদ্ধার করেছে। পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
পিটিয়ে হত্যা,ধাওয়া,ছাত্রলীগ নেতা,শ্রীপুর,যুবলীগ,মরদেহ উদ্ধার
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close