কুমিল্লা প্রতিনিধি

  ১২ অক্টোবর, ২০২১

সুবিধাদি বাতিল ও অর্থ ফেরত নেওয়ার প্রতিবাদে 

কুমিল্লায় প্রাথমিক শিক্ষকদের মানববন্ধন

আট বছর পর প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রনালয় কর্তৃক জাতীয়করণ হওয়া শিক্ষকদের টাইমস্কেল বাতিল, গৃহিত অর্থ ফেরত নেওয়ার নির্দেশের প্রতিবাদে কুমিল্লায় মানববন্ধন করেছে বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক কল্যাণ সমিতি।

এতে বিপাকে পড়েছে জেলার সাড়েত ৩ হাজার শিক্ষক। পরে শিক্ষকরা জেলা শিক্ষা অফিসারের কাছে চার দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে স্মারক লিপি প্রদান করেন। 

মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) দুপুরে কুমিল্লা টাউনহলের সামনে মানববন্ধনে অংশ নেন জেলার ১৭উপজেলা থেকে আগত প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা। 

এসময় বক্তব্য রাখেন- বাংলাদেশ প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি কুমিল্লা জেলা শাখার সভাপতি মো. হাবিবুর রহমান ভূইয়া, সাধারণ সম্পাদক কামাল হোসেন, শিক্ষক নেত্রী ফয়জুন্নেসা সীমা।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রাথমিক শিক্ষার মান উন্নয়নে অবহেলিত শিক্ষকদের সামাজিক মর্যাদা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ২০১৩ সালের ৯ জানুয়ারি ঐতিহাসিক ঘোষণার মাধ্যমে ২৬ হাজার ১৯৩ টি বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও কর্মরত ১ লাখ ৪ হাজার ৭৭২ জন শিক্ষকের চাকরি জাতীয়করণ করেন। 

তবে, গত ২০২০ সালের ১২ আগষ্ট অর্থমন্ত্রনালয় কর্তৃক একটি পরিপত্র জারির মাধ্যমে টাইমস্কেল বাতিল পূর্বক, গৃহিত অর্থ ফেরত নেওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়। এছাড়াও জাতীয়করণকৃত প্রাথমিক শিক্ষকদের জৈষ্ঠতা, পদোন্নতি, টাইমস্কেল ও অবসর গ্রহণকারী শিক্ষকদের ৫০ ভাগ বেসরকারি কার্যকর চাকরিকালে পিআরএল, লামগ্র্যন্ড, পেনশন ও আনুতোষিক প্রদান করা হচ্ছে না। এতে করে হাজার হাজার শিক্ষকের পরিবারে চরম হতাশার সৃষ্টি হয়েছে। এ থেকে পরিত্রাণের লক্ষ্যে আমরা প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করি।

চার দফা দাবীগুলো হলো- অর্থ মন্ত্রনালয়ের পরিপত্রটি প্রত্যাহার, বেসরকারি ৫০ ভাগ কার্যকর চাকরিকালের ভিত্তিতে টাইমস্কেল, অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষকদের পি.আর.এল, লামগ্র্যান্ড, পেনশন ও আনুতোষিক প্রদান অব্যহত রাখতে হবে।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
কুমিল্লা,প্রাথমিক শিক্ষক,মানববন্ধন,স্মারকলিপি প্রদান
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close