ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি

  ১১ সেপ্টেম্বর, ২০২১

স্কুল খোলার একদিন আগে ভবনের ছাদ ধস

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মিত ভবনের চিলেকোঠা ছাদ ধসে পড়েছে। বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে না জানিয়ে ছাদ ঢালাই করা হচ্ছিলো বলে অভিযোগ করেছেন প্রধান শিক্ষক। 

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার রাতে তিনতলা ভবনের চিলেকোঠার ছাদের একাংশ হেলে পড়ে। শুক্রবার সকালে ছাদের সম্পূর্ণ অংশটি ভেঙে যায়। 

২০১৯-২০ অর্থবছরে নাসিরনগর উপজেলা প্রকৌশল অধিদপ্তরের অধীনে নাসিরনগর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় নির্মাণের জন্যে দরপত্র আহ্বান করা হয়। এতে স্কুলটি নির্মাণের ব্যয় ধরা হয় প্রায় ৭০ লাখ টাকা। জমির জুলিয়া ট্রেডার্স নামে একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান এই নির্মাণকাজ করছে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক অজিত কুমার দাস অভিযোগ করেন, ঠিকাদার কাজের শুরু থেকেই কাজ নিয়ে তালবাহানা করে আসছিলো। কাজের ইস্টিমিট ও নকশা চাইলেও ঠিকাদার দেয়নি। স্কুল কর্তৃপক্ষের কাউকে না জানিয়ে ছাদ ঢালাই করার বিষয়ে উপজেলা প্রকৌশলীকে মৌখিখভাবে অভিযোগ করি।

এ বিষয়ে ঠিকাদার মো. নিক্সন কাউকে না জানিয়ে ছাদ ঢালাই করার অভিযোগ অস্বীকার করেন।

বিদ্যালয় ভবন নির্মাণ কাজের তদারকির দায়িত্বে থাকা সহকারী উপজেলা প্রকৌশলী মো. ইসহাক মিয়া জানান, আমাদেরকে না জানিয়ে ঠিকাদার ছাদের ঢালাই করে। পরে উপজেলা প্রকৌশলী ঠিকাদারকে ছাদ ভেঙ্গে নতুনভাবে করার নির্দেশ প্রদান করে চিঠি দেয়।

এদিকে ছাদ ধসে পড়ার বিষয়ে কথা বলতে রাজী হননি উপজেলা প্রকৌশলী মো. সাইফুল ইসলাম। ইউএনও হালিমা খাতুন বলেন, আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। ঠিকাদারকে বলা হয়েছে ছাদটি ভেডে নতুনভাবে করার জন্যে।

পিডিএসও/এসএম শামীম

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
ব্রাহ্মণবাড়িয়া,নাসিরনগর
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close