সালাহ্উদ্দিন শুভ, কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার)

  ০৫ আগস্ট, ২০২১

প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্য বাম্বোতল লেক

ওহ্ ছাড়দিকে শুধু সুনীল আকাশ, গাঢ় সবুজ পাহাড়, এ যেন শিল্পীর তুলিতে আঁকা ছবির মতো মনোরম চা বাগানের দৃশ্য। যে কেউ মনের গহিনে হারিয়ে যাবেন আপন মনে। চারদিকটা পাহাড় আর পাহাড়, ঠিক পাহাড়ের মাঝখানে এই লেক। এটি মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার মিরতিংগা চা বাগানে অবস্থিত ‘বাম্বোতল’ লেক। কমলগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে প্রায় ১৫ কিলোমিটার ভেতরে। 

অপার সৌন্দর্যের লীলাভূমিতে পর্যটকদের ছোঁয়া লাগেনি এই লেকে। যার ফলে অপরূপ সৌন্দর্যের বাহারে সবুজ সমারোহ প্রকৃতি যেন ঝলমল করছে। লেকের ঝলমল জল, ছায়া সুনিবিড় পরিবেশ, শাপলা-শালুকের উপস্থিতিতে আরও মনোমুগ্ধকর করে তুলেছে পরিবেশ।

লেকের চারপাশে উঁচু উঁচু টিলা। চায়ের গাছ এবং ছায়াবৃক্ষ গাছের সারি। এরই মাঝে একঝাঁক পাখি তাদের সুরের মুর্চ্ছনা দিয়ে সুনীল আকাশে উড়ে যাচ্ছে। গাঢ় সবুজ পাহাড়, শিল্পীর তুলিতে আঁকা ছবির মতো চা বাগানের মনোরম দৃশ্য যে কারো মনকে উত্তলা করে তুলবে এবং নিয়ে যাবে ভিন্ন এক জগতে। প্রকৃতির নিজ হাতে আঁকা মায়াবী এক নৈসর্গিক দৃশ্য।

পড়ন্ত বিকাল বেলা সবুজ প্রকৃতির মাঝে এই লেকে অবস্থান করে নিশ্বাসের প্রশ্বাস নেয়া যেতে পারে নির্বিঘ্নে। পর্যটকরা জানেন না এত চমৎকার এই স্থানের কথা। নতুন করে আবিষ্কার হলো এ লেক। ঘুরে আসতে পারেন, উপভোগ করতে পারেন এখানকার চা শ্রমিকদের জীবনমান, লেকের অপরূপ সৌন্দর্য ও প্রাকৃতিক দৃশ্য।

পিডিএসও/হেলাল

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
কমলগঞ্জ,চা বাগান,বাম্বোতল লেক
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close