নিজস্ব প্রতিবেদক

  ২৭ নভেম্বর, ২০২২

গ্রামীণ শ্রমজীবীদের পেনশন দিতে হবে : মেনন

অর্থ জমা রাখা ছাড়াই খেতমজুর ও গ্রামীণ শ্রমজীবীদের জন্য পেনশন চালু করা জরুরি বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন। তিনি বলেন, আমরা সচিবদের এবং সরকারের অন্য কর্মকর্তাদের বৃদ্ধ বয়সের নিরাপত্তায় পেনশন দিচ্ছি। তাহলে কৃষি কাজে যারা আছেন তাদের বৃদ্ধ বয়সে নিরাপত্তা কীভাবে দিতে পারব? তাদের নিরাপত্তায় অর্থ জমা রাখা ছাড়াই পেনশন স্কিম চালু করা জরুরি। গতকাল শনিবার (২৬ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের তফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া হলে বাংলাদেশ খেতমজুর ইউনিয়ন আয়োজিত ‘খেতমজুর ও গ্রামীণ শ্রমজীবীদের জন্য জমাবিহীন পেনশন’ শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে তিনি এ কথা বলেন।

কাজের অভাবে দেশের জনগণ প্রবাসে চলে যায় মন্তব্য করে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি বলেন, এখন প্রায়ই একটা অভিযোগ শোনা যায়, গ্রামে কৃষি কাজের জন্য লোক পাওয়া যায় না। তার মানে এই না, গ্রামে তাদের অনেক কর্মসংস্থান করা হয়েছে, তারা অনেক সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছে। মূলত তারা দেশের বাইরে চলে যায় ভালো সুযোগ-সুবিধার জন্য। ফলে সেখানে নারীদের অংশগ্রহণ বেড়েছে। গ্রামের ৭২ শতাংশ নারী এখন কৃষি কাজে অংশ নিচ্ছে।

তিনি বলেন, ইউনিভার্সেল পেনশন স্কিম বা খেতমজুরদের জন্য জমাবিহীন পেনশন সরকারের দয়া-দক্ষিণা নয়, গ্রামীণ শ্রমজীবীরা নাগরিক হিসেবেই এটা পেতে পারেন। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এ বিষয়টি চালু রয়েছে। স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে আলোচনা না করে যে আইন করা হবে, সেই আইনে স্টেকহোল্ডাররা সুবিধা পাবেন না বলেও মনে করেন সাবেক এই সমাজকল্যাণমন্ত্রী।

বাংলাদেশ খেতমজুর সভাপতি অধ্যাপক নজরুল হক নীলুর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরো ছিলেন সংসদ সদস্য মুস্তফা লুৎফুল্লাহ, ড. মোস্তাফিজুর রহমান, ড. বিনায়ক সেন, অধ্যাপক এম এম আকাশ, শামসুল হুদা প্রমুখ।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close