নিজস্ব প্রতিবেদক

  ০৫ ডিসেম্বর, ২০২১

পূর্ব লেনদেনের জেরে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

রাজধানীর পূর্ব বাসাবো এলাকায় লেনদেনের জেরে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গলা কেটে ও কুপিয়ে মো. জহির মুনশি নামের এক যুবককে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় মূল অভিযুক্ত নাজমুল নামের একজনকে গ্রেপ্তার করছে সবুজবাগ থানা পুলিশ।

শুক্রবার রাত ১টার দিকে পূর্ব বাসাবো হক সোসাইটি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে পুলিশ লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

নিহতের বোনের স্বামী আবদুল মতিন বলেন, ‘শুক্রবার রাত ১১টার দিকে নাজমুল তাকে ফোন করে ডেকে নিয়ে যায়। এরপর রাত ১টার দিকে তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ও গলা কেটে হত্যা করে। রাত দেড়টার দিকে আমরা খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই।’

আবদুল মতিন আরো বলেন, ‘দুই বছর আগে একসঙ্গে ভাড়া থাকতেন নাজমুল ও জহির। নাজমুলের অন্য জায়গায় চাকরি হলে সে বাসা ভাড়ার সাত হাজার টাকা না দিয়ে চলে যায়। তিন দিন আগে নাজমুলের সঙ্গে জহিরের দেখা হয়। ওই সময় পাওনা টাকা চাওয়ায় দুজনের মধ্যে কথা-কাটাকাটি হয়। এর জেরে জহিরকে ডেকে নিয়ে হত্যা করে নাজমুল। পরে নাজমুল পালিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয় কয়েকজন তাকে আটক করে পুলিশে দেন।’

মতিন আরো জানান, ‘কদমতলায় জহিরের চায়ের দোকান আছে। তার বাড়ি চাঁদপুর সদর থানার সাকুয়া গ্রামে। তার বাবার নাম মকলেস মুনশি।

সবুজবাগ জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার (এসি) মনোতোষ বিশ্বাস বলেন, ঘটনাস্থল থেকে নাজমুল নামের একজনকে স্থানীয়রা আটক করে থানায় সোপর্দ করেন। নিহতের বাবা মকলেস মুনশি বাদী হয়ে হত্যা মামলা করেছেন। এ ঘটনায় জড়িত অন্যদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close