বকশীগঞ্জ (জামালপুর) প্রতিনিধি

  ১০ অক্টোবর, ২০২১

আমনে পোকার আক্রমণ উৎপাদন নিয়ে শঙ্কা

বকশীগঞ্জে চলতি মৌসুমে রোপা আমনের খেতে মাজরা পোকা ও পাতা মোড়ানো পোকার আক্রমণ দেখা দিয়েছে। এতে দিশাহারা হয়ে পড়েছেন কৃষকরা। ফসলের খেতে কীটনাশক ব্যবহার করেও পোকা দমন করা যাচ্ছে না। ফলে কৃষকদের মধ্যে দুশ্চিন্তা দেখা দিয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, চলতি মৌসমে উপজেলার সাতটি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় ১২ হাজার ৭১২ হেক্টর জমিতে রোপা আমনের চাষাবাদ করা হয়েছে। এরমধ্যে হাইব্রিড ৬ হাজার ৭৬০ হেক্টর, উফশী জাত ৫ হাজার ৫৫২ হেক্টর ও স্থানীয় জাত ৪০০ হেক্টর জমিতে রোপা আমন চাষ করা হয়েছে।

গত সেপ্টেম্বর মাসের প্রথম সপ্তাহে উপজেলার চারটি ইউনিয়নে বন্যায় চার হাজার হেক্টর জমির রোপা আমন পানিতে তলিয়ে যায়। রোপা আমনের খেত থেকে পানি নেমে গেলে কিছুদিন পর থেকে পোকার আক্রমণ দেখা দিয়েছে। বন্যাকবলিত সাধুরপাড়া, বগারচর, মেরুরচর ও নিলক্ষিয়া ইউনিয়নের রোপা আমন খেতে মাজরা পোকা ও পাতা মোড়ানো পোকার আক্রমণ দেখা দিয়েছে। পোকার আক্রমণ অব্যাহত থাকলে এবারের রোপা আমন চাষে ফলন বিপর্যয়ের আশঙ্কা করছেন কৃষকরা।

স্থানীয় কৃষকরা জানান, পোকার আক্রমণে দিশাহারা হয়ে পড়েছেন তারা। বিভিন্ন বালাইনাশক ব্যবহার করেও পোকা দমন করতে পারছেন না। সাধুরপাড়া ইউনিয়নের বিলের পাড় গ্রামের কৃষক লালচান মিয়া জানান, এ বছর পোকার আক্রমণ ব্যাপক বৃদ্ধি পেয়েছে।

তিনি আরো জানান, কৃষি বিভাগ থেকে পোকার আক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে কৃষকদের পরামর্শ প্রদান করছেন। তবে জনবল সংকটের কারণে সব এলাকায় কৃষকের মাঝে সেবা পৌঁছানো কষ্টসাধ্য হয়ে দাঁড়িয়েছে। উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা কৃষিবিদ অনুপ সিংহ জানান, মাজরা পোকা ও পাতা পোড়ানো রোগ দমনে উপজেলা কৃষি বিভাগের কর্মকর্তারা সার্বক্ষণিক কৃষকদের পরামর্শ প্রদান করে যাচ্ছেন।

 

 

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close