নিজস্ব প্রতিবেদক

  ০৬ জুলাই, ২০২৪

দেশের পক্ষে কথা বলার সরকার নেই

- গণতন্ত্র মঞ্চ

গণতন্ত্র মঞ্চের নেতারা বলেছেন, ‘বাংলাদেশের পক্ষে কথা বলার কোনো সরকার দেশে নেই। এ দেশে আছে অন্য দেশের তাবেদার সরকার। আওয়ামী লীগ এবং বর্তমান সরকার বাস্তবে এখন ভারতীয় স্বার্থের প্রতিনিধিত্ব করছে।’ গতকাল শুক্রবার রাজধানীর জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে ‘বাংলাদেশের স্বার্থবিরোধী ও নিরাপত্তা হুমকি সৃষ্টিকারী সমঝোতা স্মারকের প্রতিবাদে’ গণতন্ত্র মঞ্চ আয়োজিত বিক্ষোভ সমাবেশে এসব কথা বলেন নেতারা।

গণতন্ত্র মঞ্চের অন্যতম নেতা এবং নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, ভারত তথাকথিত সিকিউরিটির নামে বাংলাদেশে গণতন্ত্র বিকশিত হতে দেয় না। ১৫ বছর ধরে গায়ের জোরে যে সরকার ক্ষমতায় বসে আছে তাকেই ক্ষমতায় রাখবার চেষ্টা করে। সরকার এখন ভারতের সঙ্গে স্যাটেলাইট চুক্তি করেছে। ভারতের স্যাটেলাইট এখন বাংলাদেশের যেকোনো জায়গায় তদন্ত-তদারকি করতে পারবে। আমার দেশের সিকিউরিটি ভারতের হাতে চলে গেছে। এবারের ভারত সফরে শেখ হাসিনা আমাদের দেশের সব শর্ত জলাঞ্জলি দিয়ে দিয়েছে।

বিক্ষোভ সমাবেশে মঞ্চের আরেক নেতা বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক বলেন, আওয়ামী লীগ এবং বর্তমান সরকার বাস্তবে এখন ভারতীয় স্বার্থের প্রতিনিধিত্ব করছে।

ফলে এই সরকার যে সমঝোতা চুক্তি করেছে সেটা কোনোভাবেই বাংলাদেশের মানুষ গ্রহণ করবে না। এ সরকারের কাছে কোনো কিছুই এখন আর নিরাপদ নয়। স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব, জাতীয় নিরাপত্তা সবকিছুই আজ হুমকির মুখে।

গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি বলেন, শুষ্ক মৌসুমে পানি আটকে রেখে আমাদের আবার পানিতে মারবেন, সীমান্তের কাঁটাতারে আমাদের নাগরিকদের প্রতিদিন গুলি করে হত্যা করবেন, বাংলাদেশের সঙ্গে বন্ধুত্বের কথা বলে বাণিজ্যে সব ধরনের অশুল্ক বাধা সৃষ্টি করে রাখবেন, আপনাদের যা চাহিদা বাংলাদেশ তা পূরণ করবে- এরকম অবস্থা এ দেশে নির্বাচিত সরকার যদি থাকত তাহলে হতো না। আমাদের দেশের সরকার একটা জিনিসই জানেন সেটি হলো কীভাবে গদি রক্ষা করতে হয়। বাংলাদেশের পক্ষে কথা বলার কোনো সরকার দেশে নেই।

এ সময় তিনি ছাত্র-শিক্ষকদের আন্দোলনে সমর্থন জানিয়ে বলেন, আমরা পরিষ্কারভাবে ছাত্রদের আন্দোলনকে সমর্থন জানাই। শিক্ষকদের আন্দোলনকে সমর্থন জানাই। এ দেশের মানুষের প্রতিটি আন্দোলনে আমরা আছি। আমরা সবাই একসঙ্গে সব বিরোধী দলকে ঐক্যবদ্ধ করে আন্দোলনের মাধ্যমে আপনাদের (সরকার) ক্ষমতা থেকে নামিয়ে দেব।

ভাসানী অনুসারী পরিষদের আহ্বায়ক শেখ রফিকুল ইসলাম বাবলুর সভাপতিত্বে এ সময় বিক্ষোভ সমাবেশে আরো উপস্থিত ছিলেন রাষ্ট্র সংস্কার আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক অ্যাডভোকেট হাসনাত কাইয়ুম, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জেএসডি) সহসভাপতি তানিয়া রবসহ গণতন্ত্র মঞ্চের অন্য নেতারা।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close