প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ২১ নভেম্বর, ২০২১

সুদানে গণবিক্ষোভের ডাক গুলিতে নিহত বেড়ে ৪০

সুদানে গণবিক্ষোভের ডাক দিয়েছে অভ্যুত্থানবিরোধীরা। দেশটিতে সামরিক বাহিনী ক্ষমতা গ্রহণের পর থেকে সাধারণ নাগরিকসহ বিরোধীরা বিক্ষোভ শুরু করে। বিক্ষোভ থামাতে সামরিক সরকার নাগরিকদের ওপর গুলি চালায়। দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত প্রাণ হারিয়েছে ৪০ জন। খবর আলজাজিরার।

গণতন্ত্রপন্থিরা গতকাল শনিবার অনলাইনে সামরিক অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে গণবিক্ষোভের ডাক দেয়। শুক্রবার নামাজ শেষে বিক্ষোভকারীরা সামরিক অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি এলাকায় সমাবেশ করেন। বিশেষ করে উত্তর খার্তুমে। সেখানে লোকজনকে রাস্তাজুড়ে ব্যারিকেড তৈরি করতে দেখা গেছে। নিরাপত্তা বাহিনী তাদের ছত্রভঙ্গ করতে বিক্ষিপ্তভাবে কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ করেছে।

২৫ অক্টোবর দেশটির শীর্ষ রাজনৈতিক নেতাদের বন্দি করে ক্ষমতা দখল করেন জেনারেল ফাত্তাহ আল-বুরহান। প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদককে গৃহবন্দি ও বেশ কয়েকজন মন্ত্রীকে গ্রেপ্তারের পাশাপাশি দেশব্যাপী জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেন তিনি।

এ ঘটনার পরপরই সামরিক অভ্যুত্থানের প্রতিবাদে রাস্তায় নামেন সুদানের হাজার হাজার মানুষ। এর আগে সুদানের স্বাধীন চিকিৎসকদের সংগঠনের তথ্যানুযায়ী, সহিংসতায় প্রাণ গেছে ১৪ জনের এবং আহত হন ৩০০ জনের মতো মানুষ।

অরাজনৈতিক পরিস্থিতির কারণে দেশটির সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে নিন্দার ঝড় ওঠে আন্তর্জাতিক অঙ্গনেও। সুদানে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠায় সরব হয় ইউরোপীয় ইউনিয়ন, যুক্তরাষ্ট্রসহ বিভিন্ন দেশ ও সংস্থা।

সুদানে তিন দশক ধরে প্রেসিডেন্টের ক্ষমতায় ছিলেন ওমর আল-বশির। ২০১৯ সালে ওমর আল-বশির সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করে দেশটির সেনাবাহিনী। এরপর ক্ষমতা ভাগাভাগি করে দেশ পরিচালনা করছিল সামরিক বাহিনী ও বেসামরিক সরকার।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close