নিজস্ব প্রতিবেদক

  ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২২

বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধির প্রাক্কলন কমাল এডিবি

মহামারির ধাক্কা সামলে অর্থনীতি ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করায় বাংলাদেশ গত অর্থবছরে মোট দেশজ উৎপাদনে (জিডিপি) প্রত্যাশার চেয়ে বেশি প্রবৃদ্ধি পেলেও ইউক্রেন যুদ্ধের সংকটে চলতি অর্থবছরের প্রবৃদ্ধির প্রাক্কলন কমিয়ে এনেছে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক-এডিবি।

বুধবার (২১ সেপ্টেম্বর) প্রকাশিত এডিবির ত্রৈমাসিক প্রতিবেদন এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট আউটলুকে বলা হয়েছে, ২০২২-২৩ অর্থবছরে বাংলাদেশের জিডিপি ৬ দশমিক ৬ শতাংশ বাড়তে পারে, যা আগে ৭ দশমিক ১ শতাংশ হতে পারে বলে প্রাক্কলন করেছিল ম্যানিলাভিত্তিক এই ঋণদাতা সংস্থা। এডিবি বলছে, যুদ্ধের জেরে রপ্তানিতে প্রভাব, জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধি এবং সরকারের ব্যয় সংকোচন নীতির কারণে এ অর্থবছর প্রবৃদ্ধির গতি কমে আসবে।

বিদায়ি ২০২১-২২ অর্থবছরে বাংলাদেশ ৬ দশমিক ৯ শতাংশ হারে বাড়তে পারে বলে গত এপ্রিলের প্রাক্কলনে ধারণা দিয়েছিল এডিবি। তবে শিল্প ও সেবা খাত প্রত্যাশার তুলনায় দ্রুত ঘুরে দাঁড়াতে পারায় এবং ভালো রেমিট্যান্স প্রবাহের কারণে ভোগ ব্যয় বৃদ্ধি পাওয়ায় অর্থবছর শেষে বাংলাদেশ ৭ দশমিক ২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি পেয়েছে বলে প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

সরকারি হিসাবে ২০২১-২২ অর্থবছরে বাংলাদেশের ৭ দশমিক ২৫ শতাংশ জিডিপি প্রবৃদ্ধি হয়েছিল। আর চলতি অর্থবছরের বাজেটে ৭ দশমিক ৫ শতাংশ জিডিপি প্রবৃদ্ধির লক্ষ্যমাত্রা ধরেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

বুধবার ঢাকার শেরেবাংলা নগরে এডিবির ঢাকা কার্যালয়ে তাদের এ প্রতিবেদনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন এ সংস্থার কান্ট্রি ডিরেক্টর এডিমন গিন্টিং। তিনি বলেন, বৈশ্বিক অর্থনৈতিক অনিশ্চয়তায় এবং জ্বালানি সংকটের কারণে এ বছর কাঙ্ক্ষিত হারে বিনিয়োগ হবে না। সরকারি বিনিয়োগেও ধীরগতি দেখা দেবে। এ অবস্থায় সরকারকে রাজস্ব আদায় বাড়ানোর ওপর জোর দিতে বলছে এডিবি।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close