নিজস্ব প্রতিবেদক

  ১৯ মে, ২০২২

আবার ছুটবে মৈত্রী এক্সপ্রেস

ঢাকা-কলকাতা ট্রেন চলাচল শুরু ২৯ মে

করোনাভাইরাসের কারণে ২৬ মাস বন্ধ থাকার পর আবার চালু হচ্ছে বাংলাদেশ-ভারত আন্তদেশীয় যাত্রীবাহী মৈত্রী এক্সপ্রেস ট্রেনের চলাচল। এ রুটে ৩টি ট্রেন চলাচল করবে। ২৯ মে মৈত্রী ও বন্ধন এক্সপ্রেস ট্রেন দুটির চলাচল শুরু হবে। আর ১ জুন শুরু হবে মিতালী এক্সপ্রেসের। মৈত্রী এক্সপ্রেস ঢাকা-কলকাতার মধ্যে চলাচল করবে। বন্ধন চলবে খুলনা-কলকাতা পথে। আর মিতালী এক্সপ্রেস ঢাকা থেকে নিউ জলপাইগুড়ির পথে চলবে। বাংলাদেশ রেলওয়ে সূত্র জানিয়েছে, ২৯ মে ঢাকা থেকে কলকাতা ছেড়ে যাবে মৈত্রী এক্সপ্রেস। একই দিনে কলকাতা থেকে খুলনা ছেড়ে আসবে বন্ধন এক্সপ্রেস। আর ১ জুন নিউ জলপাইগুড়ি থেকে ঢাকা ছেড়ে আসবে মিতালী এক্সপ্রেস।

বার্তা সংস্থা টিএনএনের বরাতে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, আগামী মাসে বাংলাদেশ সফরে আসছেন ভারতের কেন্দ্রীয় রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। তার ওই সফরের সময় দুই দেশের মধ্যে মৈত্রী এক্সপ্রেস, বন্ধন এক্সপ্রেস ও নিউ জলপাইগুড়ি-ঢাকা মিতালী এক্সপ্রেস চলাচল আবার শুরু হবে।

রেলওয়ে সূত্র জানায়, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে ২২ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ রেলওয়ের পক্ষ থেকে চিঠি দিয়ে দুই দেশের মধ্যে যাত্রীবাহী ট্রেন চালুর বিষয়ে ভারতীয় রেল কর্তৃপক্ষের মতামত চাওয়া হয়। জবাবে গত ১৫ মার্চ ভারতীয় রেল কর্তৃপক্ষ দুই দেশের মধ্যে যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল শুরুর বিষয়ে সম্মতি জানায়।

পাশাপাশি ভারত সরকারের কোভিড প্রোটোকলসংক্রান্ত একটি নির্দেশনা পাঠায়। এরপর ২০ মার্চ বাংলাদেশ রেলওয়ে একটি আন্তমন্ত্রণালয় সভা করে।

সভায় বাংলাদেশ রেলের পক্ষ থেকে বলা হয়, ভারতীয় সরকারের প্রোটোকল অনুসারে ভ্রমণকারীকে যাত্রার ৭২ ঘণ্টা আগে আরটিপিসিআর কোভিড টেস্ট কিংবা দুই ডোজ কোভিড টিকা গ্রহণের সনদ থাকতে হবে। ৫ বছরের কম বয়সি শিশুদের সনদের প্রয়োজন নেই। তবে ৬-১২ বছর বয়সি ভ্রমণকারীদের কোভিড প্রোটোকল সম্পর্কে স্পষ্ট করা হয়নি।

বাংলাদেশে ভ্রমণের ক্ষেত্রে কোভিড প্রটোকল ভারতের প্রটোকলের কাছাকাছি। তবে বাংলাদেশে ১২ বছরের কম বয়সি সবার টিকা কিংবা আরটিসিপিআর পরীক্ষা সনদে ছাড় দেওয়া হয়েছে।

মহামারির আগে ঢাকা-কলকাতা রুটে মৈত্রী এক্সপ্রেস সপ্তাহে পাঁচ দিন এবং খুলনা-কলকাতা রুটে বন্ধন এক্সপ্রেস দুই সপ্তাহ পরপর চলাচল করত। কিন্তু করোনার প্রকোপে বন্ধ হয়ে যায় সেগুলো। ট্রেন দুটি চালুর সময় বাংলাদেশ ও ভারত একটি করে রেক দিয়েছিল। সবশেষ চালু হওয়া মিতালি এক্সপ্রেসের রেক দিয়েছে ভারত।

২০২১ সালের মার্চে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি যৌথভাবে ঢাকা-নিউ জলপাইগুড়ি রুটের ট্রেনটি উদ্বোধন করেছিলেন।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close