reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ২২ নভেম্বর, ২০২১

সৌদির বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের বৃত্তির আহ্বান রাষ্ট্রদূতের

সৌদি আরবের আরআর বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে দুই দেশের শিক্ষার্থী ও শিক্ষক বিনিময়, যৌথ গবেষণা এবং বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী।

দূতাবাস থেকে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, গত বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেসিডেন্ট রেক্টর মোহাম্মদ বিন ইয়াহয়াহ আলশেহরির সঙ্গে এক বৈঠকে এ আহ্বান জানানো হয়। বৈঠকে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের ডিনসহ শিক্ষকরা উপস্থিত ছিলেন। রাষ্ট্রদূত এ সময় দুই দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও শিক্ষক বিনিময় এবং বিভিন্ন বিষয়ে যৌথ গবেষণার প্রস্তাব দেন, যাতে দুই দেশের শিক্ষার্থীরা ভিন্ন সংস্কৃতির সঙ্গে পরিচয় হতে পারেন এবং নিজেদের মধ্যে জ্ঞান-অভিজ্ঞতা ভাগাভাগি করে নিতে পারেন। এতে দুই দেশের শিক্ষার্থীরা লাভবান হবেন বলে রাষ্ট্রদূত আশা প্রকাশ করেন। বাংলাদেশের মাইনিং ও খনিজ-সম্পর্কিত বিষয়ে জ্ঞান ও অভিজ্ঞতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে বাংলাদেশের প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় ও অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ গবেষণার প্রস্তাব দেন রাষ্ট্রদূত। আরআর বিশ্ববিদ্যালয় বিভিন্ন বিষয়ের পাশাপাশি মাইনিং ও খনিজ বিষয়ে প্রাধান্য দিয়ে শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে। বাংলাদেশের মাইনিং ও খনিজ-সম্পর্কিত বিষয়ে জ্ঞান ও অভিজ্ঞতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে বাংলাদেশের প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় ও অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ গবেষণার প্রস্তাব দেন রাষ্ট্রদূত। বৈঠকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে গবেষণার বিষয়ে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের বিষয়ে আলোচনা করা হয়, যাতে দুই দেশের বিজ্ঞানসহ বিভিন্ন শাখায় গবেষণা করা সম্ভব হবে। সভা শেষে রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী আরআর বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজ অব মেডিসিন ও কলেজ অব ইঞ্জিনিয়ারিং পরিদর্শন করেন। এ সময় রাষ্ট্রদূতকে বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নত মানের প্রশিক্ষণ পদ্ধতি ও কারিগরি বিষয় প্রদর্শন করা হয়। আরআর বিশ্ববিদ্যালয় ২০০৭ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। এখানে প্রায় ১৭ হাজার শিক্ষার্থী অধ্যয়ন করছেন। এ বিশ্ববিদ্যালয়ে ইন্দোনেশিয়া, মালয়েশিয়া, ইয়েমেনসহ বিভিন্ন মুসলিম দেশের শিক্ষার্থীরা অধ্যয়ন করছেন। ভবিষ্যতে বাংলাদেশ থেকেও বৃত্তির মাধ্যমে শিক্ষার্থী নেওয়া হবে বলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ অবহিত করেন। সভায় দূতাবাসের ইকোনমিক কাউন্সেলর মুর্তুজা জুলকারনাঈন নোমান ও কাউন্সিলর মো. বেলাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন। এ ছাড়া রাষ্ট্রদূত গত মঙ্গলবার বিকালে আর আরে অবস্থিত বাংলাদেশি কৃষিশ্রমিকদের কর্মক্ষেত্র একটি কৃষিখামার পরিদর্শন করেন। বাংলাদেশি কৃষিশ্রমিকরা সেখানে লালশাক, মুলা, টমেটো, ফুলকপি, ডালিম ও জলপাইয়ের চাষাবাদ করছেন। প্রায় ৪০ বাংলাদেশি শ্রমিক সেখানে কাজ করছেন। রাষ্ট্রদূত এ সময় কৃষিশ্রমিকদের মরুভূমিতে চাষাবাদের অভিজ্ঞতার কথা শোনান। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

"

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close