প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

  ২৭ নভেম্বর, ২০২০

সড়কে মা ছেলেসহ ছয়জনের প্রাণহানি

লালমনিরহাটে বাসের ধাক্কায় অটোরিকশার দুই যাত্রী মা ও শিশুপুত্র নিহত হয়েছেন। মাদারীপুরের শিবচরে একজন ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিনজন নিহত, পাঁচজন আহত হয়েছেন। প্রতিনিধিদের পাঠানো রিপোর্ট

লালমনিরহাট : লালমনিরহাটের কালীগঞ্জে বাসের ধাক্কায় মা ও শিশুপুত্র নিহত হয়েছেন। এ সময় অটোচালক বদিউজ্জামানসহ আরো ৫ যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় লালমনিরহাট-বুড়িমারী মহাসড়কের কালীগঞ্জের চৌধুরী মোড় এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

------
নিহতরা হলেন উপজেলা ভোটমারি ইউনিয়নের শৌলমারী গ্রামের অটোচালক বদিউজ্জামানের স্ত্রী মঞ্জিলা বেগম (৩২) ও তার ৩ বছরের ছেলে সাজেদুল ইসলাম। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, সকালে বদিউজ্জামান পরিবারের সদস্যদের নিয়ে নিজস্ব অটোরিকশা করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রোগী দেখতে যাচ্ছিলেন। পথে একটি বাস তাদের অটোরিকশাকে ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই অটোরিকশা চালক বদিউজ্জামানের স্ত্রী মঞ্জিলা বেগম মারা যান। পরে তাদের তিন বছরের ছেলেসহ আহত পাঁচজনকে গুরুতর আহত অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা শিশু সাজেদুল ইসলামকে মৃত ঘোষণা করে।

এদিকে আহত পাঁচজনের মধ্যে দুজনের অবস্থার অবনতি হলে তাদের দুজনকে রংপুর মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়েছে বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

কালীগঞ্জ থানার ওসি আরজু মো. সাজ্জাদ জানান, বাসটি আটক করা সম্ভব হয়নি।

শিবচর (মাদারীপুর) : শিবচরে বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে আল আমীন (৩৯) নামের একজন নিহত হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে কাঁঠালবাড়ী ঘাট এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। আল আমীন বাগেরহাট জেলার মোরেলগঞ্জ থানার গাবতলা এলাকার সুরুজ উদ্দিন দরানীর ছেলে। পুলিশ ও নিহতের স্ত্রী রেশমা বেগম জানান, আল আমীন তার স্ত্রী ও ছেলে নিয়ে মোরেলগঞ্জ থেকে সুন্দরবন পরিবহনের একটি বাসে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা হন। বাসটি কাঁঠালবাড়ী ঘাট এলাকায় এলে আল আমীন বাস থেকে নেমে স্ত্রী ও সন্তানের নেমে পরার জন্য অপেক্ষা করেন। এ সময় চালক বাসটিকে সামনের দিকে টান দিলে আল আমীন বাসের নিচে পড়ে যান। স্থানীয়রা হাসপাতালে নেওয়ার আগেই তার মৃত্যু হয়।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া : ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিজয়নগরে যাত্রীবাহী বাস ও পাওয়ার ট্রলির মুখোমুখি সংঘর্ষে তিনজন নিহত ও পাঁচজন আহত হয়েছেন। গত বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলার রামপুরা এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। নিহতরা হলেন আক্তার হোসেন (৫০), রমজান (৬০) ও শহিদুল্লাহ (৩০)। তাদের বাড়ি জেলার বিজয়নগর উপজেলার চর ইসলামপুর গ্রামে।

বিজয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আতিকুর রহমান জানান, আহতের পরিচয় জানা যায়নি।

 

 

"

আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়