কাকের বিশ্লেষণী ক্ষমতা!

প্রকাশ | ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

কলসি থেকে কাকের পানি পানের সেই গল্প সবার জানা। একটি কাক কলসির তলানিতে পড়ে থাকা পানি নুড়ি পাথর ফেলে পান করেছিল। তবে শুধু যে বইয়ের পাতায় লেখা গল্পেই কাক বুদ্ধিমান তা নয়, বাস্তবেও তার প্রমাণ পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা।

গবেষণায় তারা জানতে পেরেছেন, কাকের মস্তিষ্কও মানুষের মতোই ক্ষুরধার! অতীতের অনেক বিষয় মনে রাখতে পারে কাক। শুধু তা-ই নয়, এসব বিষয় বিশ্লেষণও করতে পারে। বিজ্ঞান সাময়িকী ‘সায়েন্সে’ প্রকাশিত একটি গবেষণা নিবন্ধে এমন তথ্য এসেছে। জার্মানির টুবিজেন বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক এ গবেষণা চালিয়েছেন।

নিবন্ধে বলা হয়, কাকের অনেক বুদ্ধি আছে। মনে রাখা ঘটনা বা বিষয়কে বিশ্লেষণ করতে পারে। এই ক্ষমতা প্রাণিজগতে বিরল। মানুষসহ হাতেগোনা কয়েকটি জীবের এই ক্ষমতা রয়েছে।

কাক নিজের ভাবনা বিশ্লেষণ করতে পারে কি না, তা জানতে অজি ও গ্লেন নামে দুটি কাককে প্রশিক্ষণ দেন জার্মান বিজ্ঞানীরা। পরে একটি প্যানেল থেকে দুটি রং বেছে নিতে তাদের নির্দেশনা দেওয়া হয়। এ সময় শক্তিশালী কম্পিউটারের মাধ্যমে কাক দুটির মস্তিষ্কের ক্রিয়াকলাপে নজরদারি করা হয়। এ প্রক্রিয়ার সময় তাদের মস্তিষ্কের কয়েক শ নিউরন ট্র্যাক করেন বিজ্ঞানীরা। রং নির্বাচনের সময় কাকেরা কী দেখেছে, সুপ্ত আলোর উপস্থিতি তারা বুঝেছে কি না, আগে থেকে নির্ধারণ করে রাখা রং তারা বেছে বের করতে পারছে কি না এসব বিষয় বিশ্লেষণে দেখা যায়, অধিকাংশ ক্ষেত্রেই সাফল্য দেখিয়েছে কাক দুটি! টুবিজেন বিশ্ববিদ্যালয়ের নিউরোবায়োলজি ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক ড. আন্ড্রেস নিডার বলেন, ‘নিউরালভিত্তিক আচরণমূলক ক্রিয়াকলাপের আরো সর্বজনীন মডেলগুলো বোঝার জন্য তারা এই গবেষণা শুরু করেছিলেন। এটি অন্যদের স্মৃতিচারণা, কৌশলগত পরিকল্পনা এবং বিমূর্তনের গবেষণার জন্য সহায়তা করবে। গবেষণার সঙ্গে যুক্ত ইউনিভার্সিটি অব ওয়াশিংটনের বিশেষজ্ঞ জন মারজলুফ বলেন, ‘এটি দারুণ খবর। কাকের ক্ষুরধার মস্তিষ্ক সম্পর্কে আমরা অনেক কিছুই জানি না। আশা করছি, গবেষণা প্রতিবেদনের পর আরো অনেক তথ্য বেরিয়ে আসবে।’

সূত্র ডেইলি মেইল।

 

 

"