reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ১৮ জুন, ২০২২

বৈশ্বিক জ্ঞান সূচক : ১৫৪ দেশের মধ্যে বাংলাদেশ ১২০

ছবি : প্রতিদিনের সংবাদ।

শিক্ষার মান প্রকাশ করে এমন তিনটি বৈশ্বিক জ্ঞান সূচকে বাংলাদেশের অবস্থান ১৫৪ দেশের মধ্যে ১২০ তম।

এই তিন সূচক হলো, বৈশ্বিক জ্ঞান সূচক বা গ্লোবাল নলেজ ইনডেক্স (জিকেআই), প্রতিভা সূচক বা গ্লোবাল ট্যালেন্ট কম্পিটিটিভনেস ইনডেক্স (জিটিসিআই) এবং বৈশ্বিক উদ্ভাবন সূচক বা গ্লোবাল ইনোভেশন ইনডেক্স (জিআইআই)।

জার্মান গণমাধ্যম ডয়চে ভেলের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ইউএনডিপি ও মোহাম্মদ বিন রশিদ আল মাকতুম নলেজ ফাউন্ডেশনের প্রকাশিত ২০২১ সালের বৈশ্বিক জ্ঞান সূচকে ১৫৪টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১২০ তম।

সাতটি বিষয় বিবেচনায় নিয়ে এটি তৈরি করা হয়েছে। প্রাক-বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষা, প্রযুক্তিগত ও বৃত্তিমূলক শিক্ষা, উচ্চশিক্ষা, গবেষণা, উন্নয়ন ও উদ্ভাবন, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি, অর্থনীতি এবং সাধারণ সক্ষমতার পরিবেশ।

এই বৈশ্বিক জ্ঞান সূচকে দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের চেয়ে খারাপ অবস্থানে আছে পাকিস্তান (১২৩), নেপাল (১২৮) ও আফগানিস্তান (১৫১)। দক্ষিণ এশিয়ায় শীর্ষে আছে শ্রীলঙ্কা (৮৬)। ভারত ও ভুটান আছে যথাক্রমে ৯৭ ও ১০৮ তম স্থানে।

এদিকে ফ্রান্সভিত্তিক বিজনেস স্কুল ‘ইনসিয়েড’ ও ওয়াশিংটনভিত্তিক ‘পোর্টুল্যান্স ইনস্টিটিউটের’ গত অক্টোবরে প্রকাশিত ২০২১ সালের ‘গ্লোবাল ট্যালেন্ট কম্পিটিটিভনেস ইনডেক্সে’ ১৩৪ দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১২৩ নম্বরে।

মেধা অর্জনের সক্ষমতা, আগ্রহ, বিকাশ, ধরে রাখা, বৃত্তিমূলক, কারিগরি দক্ষতা ও বৈশ্বিক জ্ঞান- এই সাতটি বিষয় বিবেচনায় নিয়ে সূচকটি তৈরি করা হয়েছে। এই সূচকে দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশের অবস্থান সবার নীচে। এই অঞ্চলে শীর্ষে আছে ভারত (৮৮)। এরপর আছে শ্রীলঙ্কা (৯৩), পাকিস্তান (১০৭) ও নেপাল (১১৩)।

অন্যদিকে জাতিসংঘের সংস্থা ‘ওয়ার্ল্ড ইন্টেলেকচুয়াল প্রপার্টি অর্গানাইজেশনের’ প্রকাশিত ২০২১ সালের বৈশ্বিক উদ্ভাবন সূচকে ১৩২ দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১১৬ নম্বরে। এই সূচকেও দক্ষিণ এশিয়ায় সবার নীচে আছে বাংলাদেশ। সবচেয়ে ভালো অবস্থানে আছে ভারত (৪৬)। এরপর আছে শ্রীলঙ্কা (৯৫), পাকিস্তান (৯৯) ও নেপাল (১১১)।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
বৈশ্বিক,জ্ঞান সূচক,বাংলাদেশ
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close