reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ১১ জুলাই, ২০২৪

‘তালাকের পরও ভরণপোষণ পাবেন স্ত্রী’

সুপ্রিম কোর্টের আদেশ

ছবি: সংগৃহীত

বিবাহবিচ্ছেদ হওয়ার পরেও স্বামীর কাছ থেকে ভরণপোষণ চাইতে পারেন মুসলিম নারীরা। বুধবার (১০ জুলাই) ভারতের সুপ্রিম কোর্ট এই রায় দিয়েছে। বিচারপতি বিভি নাগারত্ন এবং বিচারপতি অগাস্টিন জর্জ মাসিহের ডিভিশন বেঞ্চ এই রায় দেন। খবর হিন্দুস্তান টাইমস।

আদালতের রায়ে বলা হয়, কোড অব ক্রিমিনাল প্রসিডিউরের (সিআরপিসি) ১২৫ নম্বর ধারা অনুযায়ী একজন তালাকপ্রাপ্ত মুসলিম নারী তার স্বামীর কাছ থেকে ভরণপোষণ চাইতে পারেন।

আর এই রায় ঘোষণার মধ্য দিয়ে গৃহিণীদের কাজের স্বীকৃতি দেওয়ার বিষয়টিও সামনে এসেছে। বেঞ্চ বলেছে, ভরণপোষণ চাওয়ার অধিকার সমস্ত বিবাহিত নারীদের জন্য প্রযোজ্য, ধর্ম নির্বিশেষে।

এতদিন নারীদের ঘরের কাজ করা অথবা পরিবার সামলানোর কোনো বিনিময় মূল্য ছিল না। এজন্য গৃহিণীদের কাজের কোনো স্বীকৃতি দিতেও দেখা যায়নি। কিন্তু এখন থেকে ভারতীয় পুরুষদের তাদের স্ত্রীদের ঘর সামলানো ও পরিবারের দেখাশোনা করার মূল্য দিতে হবে।

আদালত জানিয়েছে, ‘পরিবারে গৃহিণীদের ভূমিকার কথা মাথায় রেখে আদালত স্বামীদেরকে তাদের স্ত্রীদের আর্থিক নিশ্চয়তা দেওয়ার নির্দেশ দিচ্ছে। আমরা প্রত্যেক স্বামীকে তার স্ত্রীর আর্থিক সহায়তা দেওয়ার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দিচ্ছি।’

এক্ষেত্রে পরিবারের নারীদের অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা নিশ্চিত করতে যৌথ ব্যাংক অ্যাকাউন্ট করা এবং স্ত্রীকে এটিএম অ্যাক্সেস দেওয়ার মতো ব্যবহারিক ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে আদালত।

কোড অব ক্রিমিনাল প্রসিডিউর তথা সিআরপিসির ১২৫ ধারায় কী আছে?

এই আইনের ১২৫ ধারায় স্ত্রী, সন্তান এবং পিতামাতার ভরণপোষণ সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য সন্নিবেশিত আছে। এই ধারা অনুসারে, স্বামী, পিতা বা সন্তানের উপর নির্ভরশীল স্ত্রী, পিতা-মাতা বা সন্তানরা তখনই ভরণপোষণ দাবি করতে পারেন যখন তাদের জীবিকার অন্য কোনো উপায় নেই।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
সুপ্রিম কোর্ট,তালাক,ভরণপোষণ
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close