reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২

স্নোডেনকে বিচারের মুখোমুখি করতে চায় ওয়াশিংটন

ফাইল ছবি

সাবেক মার্কিন গোয়েন্দা কর্মকর্তা এডওয়ার্ড স্নোডেনের মার্কিন নাগরিকত্বের স্ট্যাটাস নিয়ে এখনও কিছু জানে না দেশটির পররাষ্ট্র বিভাগ। সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের মুখপাত্র নেড প্রাইসের বিবৃতির বরাতে এ তথ্য জানিয়েছে রয়টার্স। তবে গোপন নথি ফাঁসকারী স্নোডেনের বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান একই রয়েছে জানিয়েছেন নেড।

নেড প্রাইস বলেন, স্নোডেনকে দেশে ফিরিয়ে গুপ্তচরবৃত্তির দায়ে বিচারের মুখোমুখি করতে চায় ওয়াশিংটন। এমন এক সময়ে রাশিয়া স্নোডেনকে নাগরিকত্ব দিলো যখন ইউক্রেন যুদ্ধকে ঘিরে তাদের সাথে যুক্তরাষ্ট্রের উত্তেজনা তুঙ্গে। রুশ নাগরিকত্বের কারণে স্নোডেনকে ইউক্রেনের বিরুদ্ধে যুদ্ধে পাঠানো হতে পারে বলে উপহাস করেন নেড প্রাইস।

মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের মুখপাত্র বলেন, এডওয়ার্ড স্নোডেনের নাগরিকত্বের স্ট্যাটাস পরিবর্তনের বিষয়ে কোনো তথ্য আমার কাছে নেই। এটা নিশ্চিত করতে চাই, তিনি দ্বৈত নাগরিক হলেও আমাদের অবস্থান একই থাকবে। বিচারকাজের জন্য তাকে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে ফিরিয়ে দেয়া উচিত।

প্রসঙ্গত, ২০১৩ সালের দিকে মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা সংস্থা, এনএসএর বিপুলসংখ্যক গোপন নথি প্রকাশ করে আলোচনায় আসেন স্নোডেন। যুক্তরাষ্ট্রের আঁড়িপাতার তথ্য প্রকাশ করে হৈচৈ ফেলে দেন গণমাধ্যমে। দেশে বিচারপ্রক্রিয়া এড়াতে রাশিয়ায় রাজনৈতিক আশ্রয় নেন ৩৯ বছর বয়সী এডওয়ার্ড। নয় বছর ধরে বসবাস করছেন সেখানেই।

২০২০ সালে রাশিয়ায় পার্মানেন্ট রেসিডেন্সির সুযোগ পান স্নোডেন। এরপর আবেদন করেন নাগরিকত্বের জন্য। রুশ পাসপোর্টের জন্য আবেদন করবেন বলে জানিয়েছেন তার মার্কিন স্ত্রীও। আর তাদের সন্তান জন্মসূত্রেই রুশ নাগরিক।

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
এডওয়ার্ড স্নোডেন,নেড প্রাইস,যুক্তরাষ্ট্র,গোপন নথি প্রকাশ
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close