reporterঅনলাইন ডেস্ক
  ১০ জানুয়ারি, ২০২২

কাবুল বিমানবন্দরে হারিয়ে যাওয়া সেই শিশু অবশেষে উদ্ধার

দুধ পান করছে উদ্ধারকৃত সোহেইল আহমাদি নামের শিশুটি। ছবি : রয়টার্স

আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের বিশৃঙ্খলায় কাবুল বিমানবন্দরে হারিয়ে যাওয়া দুই মাস বয়সী শিশুটিকে অবশেষে উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

গত বছরের ১৯ আগস্ট আফগানিস্তান থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সেনা প্রত্যাহারের বিশৃঙ্খলার মধ্যে বিমানবন্দরের বেষ্টনীর ফাঁক দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের এক সৈনিকের হাতে হস্তান্তর করা শিশু সোহেইল আহমাদির বর্তমান বয়স সাড়ে চার মাস।

শনিবার (৮ জানুয়ারি) শিশুটিকে তার আত্মীয়দের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

শিশুটির নাম সোহেইল আহমাদি। আফগানিস্তানে তালিবান ক্ষমতা দখলের সময় যখন হাজার হাজার মানুষ দেশটি ছেড়ে পালাতে চেষ্টা করছিলেন, তখন ১৯ আগস্ট শিশুটি হারিয়ে যায়। হারিয়ে যাওয়ার সময় শিশুটির বয়স ছিল মাত্র দুই মাস।

নভেম্বরে রয়টার্স শিশুটির ছবিসহ একটি এক্সক্লুসিভ সংবাদ প্রকাশ করার পর, শিশুটিকে কাবুলে খুঁজে পাওয়া যায়।

বিমানবন্দরে শিশুটিকে খুঁজে পেয়ে, হামিদ সাফি নামের ২৯ বছর বয়ষ্ক এক ট্যাক্সিচালক, তাকে নিজ সন্তান হিসেবে মানুষ করার জন্য নিজের বাসায় নিয়ে গিয়েছিলেন।

সাত সপ্তাহেরও বেশি সময় ধরে আলোচনা ও অনুরোধের পর এবং শেষ পর্যন্ত তালিবান পুলিশ কর্তৃক স্বল্প সময় আটক রাখার পর সাফি শিশুটিকে এখনও কাবুলে বসবাসকারী শিশুটির দাদা ও অন্যান্য আত্মীয়র কাছে হস্তান্তর করেন।

তারা জানান, তাদের এখন চেষ্টা থাকবে, শিশুটিকে তার মা-বাবা ও ভাই-বোনদের কাছে ফেরত পাঠানো, যাদের কিনা কয়েক মাস আগে যুক্তরাষ্ট্রে সরিয়ে নেওয়া হয়েছিল।

তাড়াহুড়ো করে সবাইকে সরিয়ে নেয়ার চেষ্টা এবং ২০ বছর যুদ্ধের পর আফগানিস্তান থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সেনা প্রত্যাহারের সময়, অনেক মা-বাবাই নিজেদের সন্তান থেকে আলাদা হয়ে পড়েন। এই ঘটনাটি তাদের দুর্দশার বিষয়টিই তুলে নিয়ে এসেছে।

আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্রের কোন দূতাবাস না থাকায় এবং আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো অতিরিক্ত কাজের চাপে থাকায়, এই ধরণের জটিল পুনর্মিলনের সম্ভাব্য সময়, বা সম্ভাবনা সম্পর্কে উত্তর পেতে আফগান শরণার্থীদের বেগ পেতে হয়েছে।

সূত্র : ভোয়া বাংলা

প্রতিদিনের সংবাদ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
কাবুল বিমানবন্দ,উদ্ধার
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
close