​উল্লাপাড়া (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি

  ২৭ নভেম্বর, ২০২০

অল্পের জন্য রক্ষা সাড়ে ১৬ লাখ টাকা

অনলাইনে অর্ডার : ফ্যানের পরিবর্তে এলো ইট!

কাভার্ডভ্যানসহ চালক ও হেলপার আটক

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ার এক ব্যবসায়ীর প্রায় সাড়ে ১৬ লাখ টাকা অল্পের জন্য গচ্চা যাওয়া থেকে বেঁচেছে। তাকে দেওয়া কার্টুনে মিলেছে ইট।পুলিশ কাভার্ডভ্যানসহ চালক ও হেলপারকে আটক করেছে। 

জানা যায়, উল্লাপাড়া পৌর শহরের জিহাদ মুক্তি ইলেকট্রনিক্সের মালিক তরিকুল ইসলাম অনলাইনে কম মূল্যে ভালো মানের ইলেকট্রনিক ফ্যান বিক্রির বিজ্ঞাপন দেখে বুধবার চট্টগ্রামের সুমাইয়া ইলেকট্রনিক্স দোকানে মুঠোফোনে যোগাযোগ করে ৮ হাজার ২শ ২৩টি নেট মোটর ফ্যান কেনেন। এ ফ্যানের মূল্য ১৬ লাখ ৬০ হাজার ২২০ টাকা। অনলাইনে ফ্যান কেনার সময় সুমাইয়া ইলেকট্রনিক্সের পক্ষ থেকে সাইফুল ইসলামের সঙ্গে তরিকুল ইসলামের কথা হয়। এরপর তরিকুলকে একটি ব্যাংক হিসাব নম্বর দেওয়া হয়।

তরিকুলকে জানানো হয়, টাকা পাঠানোর আগেই ফ্যানগুলো উল্লাপাড়ায় পৌঁছে যাবে। তবে কার্টুন খোলার আগেই উত্তরা ব্যাংকের মাধ্যমে তাকে সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধ করতে হবে। বৃহস্পতিবার সে মোতাবেক উল্লাপাড়ায় ২শ ৭৪টি কার্টুন বোঝাই কাভার্ডভ্যান তার দোকানের সামনে এসে দাঁড়ায়। কাভার্ডভ্যানটি আসার পর তরিকুল ইসলাম উত্তরা ব্যাংক লিমিটেড উল্লাপাড়া শাখা থেকে তাকে দেওয়া হিসাব নম্বরে মোট টাকা পাঠায়।

এদিকে টাকা পাঠানোর পর ফ্যানের কার্টুনগুলো খুলতে গিয়ে তরিকুল ইসলাম ও তার দোকানের লোকজন দেখতে পায়, প্রতিটি কার্টুনের মধ্যে  ঝুট এবং একটি করে ইট দেওয়া রয়েছে। বিষয়টি তরিকুল ইসলাম উল্লাপাড়া মডেল থানা পুলিশকে জানায়।

এদিকে দ্রুত উত্তরা ব্যাংক লিমিটেড উল্লাপাড়া শাখায় গিয়ে তার পাঠানো টাকাটি পেমেন্ট বন্ধ করার বিষয় জানালে ব্যাংক তা বন্ধ রাখে। এদিকে পুলিশ কাভার্ডভ্যানসহ এর চালক ও হেলপারকে থানায় নিয়েছে।

উল্লাপাড়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ দীপক কুমার দাস পিপিএম জানান, কাভার্ডভ্যানটি জব্দ এবং এর চালক ও হেলপারকে আটক করা হয়েছে।

পিডিএসও/হেলাল

উল্লাপাড়া,ইট,ফ্যান
আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়