গোপালগঞ্জে ৫ দফা দাবীতে প্রধানমন্ত্রীর কাছে

হরিজন ঐক্য পরিষদের স্মারকলিপি

প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০১৭, ১৮:০৯

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

গোপালগঞ্জে ৫ দফা দাবীতে স্মারকলিপি প্রদান করেছে হরিজন ঐক্য পরিষদের নেতৃবৃন্দ। রোববার দুপুরে নেতৃবৃন্দ জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি প্রেরণ করেন। এ সময় সংগঠনের জেলা সভাপতি কৃষ্ণ মন্ডল, সাধারন সম্পাদক মোহন লাল, মিলন জমাদ্দার, দুলাল দাসসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

স্মারক লিপিতে তারা উল্লেখ করেন, হরিজন সম্প্রদায়ের লোকজন পরস্পরায় আদি পেশাজীবী হিসেবে পরিচ্ছন্নতা কর্মির কাজকে জাত পেশা হিসেবে সিটি করপোরেশন, পৌরসভা, সরকারি, বে-সরকারি স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানে পরিচ্ছন্নতার কাজ করে থাকে কিন্তু বর্তমানে হরিজন সম্প্রদায়ের মানুষ ছাড়াও অন্যান্য সম্প্রদায়দের এ সব কাজে নিয়োগ দেয়া হচ্ছে। এতে হরিজন সম্প্রদায়ের অধিকার লঙ্ঘিত হচ্ছে বলে তারা উল্লেখ করে।

তারা আরো উল্লেখ করেন, সকল সিটি করর্পোরেশন ও পৌরসভার প্রথম থেকে কাজ করলেও আজও পর্যন্ত হরিজন সম্প্রদায়ের মানুষ স্থায়ী নিয়োগ পায়নি। কথায় কথায় চাকুরীচ্যুত, ছাটাই ও কাজ থেকে বের করে দেয়া হয়। পরিচ্ছন্নতা কর্মি পদে ৮০% কোটার সরকারের প্রজ্ঞাপন থাকলেও নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান গুলো তা উপেক্ষা করে জাত হরিজনদের নিয়োগ বঞ্চিত করা হচ্ছে। যৌবন থেকে মৃত্যু পর্যন্ত সিটি করপোরেশন ও পৌরসভায় কাজ করলেও খালি হাতে বিদায় নিতে হয়। এখনো পৌরসভার মাসিক বেতন সর্বনিম্ন ৮০০ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ৩ হাজার টাকা। এতে তারা পরিবার পরিজন নিয়ে অমানবিক কষ্ট ভোগ করছেন। শিক্ষিত ছেলে মেয়েরা যোগ্যতার সাথে পড়াশোনা শেষ করে চাকরী পাচ্ছে না।পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলেও হরিজনদের কোটা না থাকার কারণে তারা নিয়োগ বঞ্চিত হচ্ছে।


পিডিএসও/রানা