১০ বছর ধরে শিকলে বাঁধা সাজেদুল

প্রকাশ : ২৯ জুন ২০২০, ১৭:৫৫

তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে ১০ বছর যাবৎ শিকলে বাঁধা সাজেদুলের জীবন। তাড়াশ পৌর এলাকার সোলাপাড়া মহল্লার আব্দুস সামাদের ছেলে সাজেদুল (২০) ছোটবেলা থেকেই শারীরিক ও মানসিক প্রতিবন্ধী। পরিবারের একমাত্র সন্তান সাজেদুল ছোটবেলা থেকেই প্রতিবন্ধী হওয়ায় ছেলের সুস্থ্যতার জন্যে ডাক্তার কবিরাজসহ বিভিন্ন ধরনের চিকিৎসা করিয়েছেন দিনমজুর বাবা-মা।

সাজেদুলের চিকিৎসায় কোনো উন্নতি না হওয়ায় ১০ বছরেরও বেশি সময় ধরে শিকলবন্দী জীবন পার করছে সাজেদুল। ছেলে হারিয়ে যাওয়ার ভয়ে, পানিতে পরে ডুবে যাওয়ার ভয়ে অথবা মানুষের ক্ষতি করবে এই ভয়ে বাধ্য হয়ে পায়ে শিকল দিয়ে গাছের সাথে বেঁধে রাখা হয় তাকে

প্রতিবন্ধী সাজেদুলের বাবা আব্দুস সামাদ বলেন, সংসারে অভাবের কারনে ছেলেকে উন্নত চিকিৎসা করতে পারিনি। তাইতো শিকলে বেঁধে রাখতে হয়েছে। আল্লাহ কপালে যা রাখছে তাই হবে। কিছুদিন আগে আমার মেয়েটাকেও আল্লা ওপারে নিয়ে গেলেন। একমাত্র ছেলে আমার, তাও শিকলে বাঁধা। এবার ছেলের উন্নত চিকিৎসার জন্য সমাজের বিত্তবানদের সহযোগিতা চান সামাদ

এ ব্যাপারে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা আলাউদ্দিন বলেন, আমরা সমাজসেবা অফিস থেকে প্রতিবন্ধী ভাতার ব্যবস্থা করেছি। পাবনা মানসিক হাসপাতালে সমাজসেবার কার্যক্রম আছে। সেখানে তার উন্নত চিকিসার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। এছাড়াও বিভিন্ন সরকারি অনুদানে তাকে সহযোগিতা করতে পারবো।

পিডিএসও/এসএম শামীম