মামলা তুলে নিতে হুমকি, সংবাদ সন্মেলনে ভুক্তভোগী শরমিন

প্রকাশ : ০১ জুন ২০২০, ১৬:১৭

লোহাগাড়া(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি

চট্টগ্রামের লোহাগাড়া সদর ইউনিয়নের রশিদের পাড়ার আলোচিত প্রতারক প্রেমিকের লাথিতে প্রেমিকার সন্তান প্রসবের ঘটনায় মামালা তুলে নিতে বাদী শরমিন আকতারকে হুমকি দিচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। রোববার সন্ধ্যায় লোহাগাড়া সদর ইউনিয়নের রশিদার পাড়াস্থ বাদশা কলোনীতে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব অভিযোগ করেন। 

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ভুক্তভোগী শরমিন বলেন, ঘটনার ৪ মাস পরও আসামি কালো মিজান ও তার সহযোগীরা আইনের আওতায় না আসায় এবং গ্রেফতার না হওয়ায় তার পরিবার ও সহযোগীরা আমাকে এখনো বিভিন্ন নির্যাতন, হুমকি ও ভয়ভীতি প্রদর্শন করে আসছে। এমনকি হত্যাকাণ্ডের ১সপ্তাহের পরও তার সহযোগীরা আমার বাসায় এসে জোরপূর্বক এ ঘটনা কালু মিজান করেনি বলে জবানবন্দি রেকর্ড করার চেষ্টা করেছে। পরে আমি প্রতিবাদ করলে তারা উক্ত ঘৃণ্য মিথ্যা জবানবন্দি মোটা অংকের টাকার বিনিময়েও রেকর্ড করতে সক্ষম হয়নি।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য আরও বলেন, কালো মিজানের ভয়ে আমি আজিজ টাওয়ারের ভাড়া বাসা ত্যাগ করে বাদশা কলোনীতে আশ্রয় নিই। কিন্তু তাদের হুমকি অব্যাহত রয়েছে। তার বাবা আবুল হোসেন এ ঘটনা মিথ্যা প্রমাণ করতে ৫০হাজার টাকার লোভ দেখায়। আবুল হোসেন তাকে আরও বলেন যে, ঘটনাটি বাদশা ও বাবর মিজানকে ফাঁসানোর জন্য এ নাটক সাজিয়েছে। তুমি শুধু এটা বলবে, তোমাকে ৫০হাজার টাকা দিবো। তোমার কিছু হবেনা। এ কথা কাউকে বলবেনা। এসব কথাগুলো বলে কালো মিজানের বাবা আবুল হোসেন তার বাসা ত্যাগ করেন।

কালু মিজান, তার বাবা আবুল হোসেনসহ তার সহযোগী, হুমকি দাতাদেরকে দ্রুত আইনের আওতায় এনে কঠোর শাস্তির জন্য জোর দাবী করেছেন ভুক্তভোগী শরমিন ও তার পরিবার।

সংবাদ সম্মেলনে লোহাগাড়ার কমরত প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।