নবাবগঞ্জে করোনা ঝুঁকিতে বসেছে হাট, বিপুল জনসমাগম

প্রকাশ : ১৫ এপ্রিল ২০২০, ১৪:০৪

নবাবগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি

করোনাভাইরাস ঠেকাতে সামাজিক দূরত্ব বজায়ের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে ঢাকার নবাবগঞ্জ উপজেলার নতুন বান্দুরা বটতলায় বসেছে সাপ্তাহিক হাট। বুধবার সকাল থেকে হাটে উপচেপড়া ভিড়। দূরত্ব মানছে না ক্রেতা-বিক্রেতারা। নির্দেশনা উপেক্ষা করে হাট বসানো এবং জনসমাগম সৃষ্টি হওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে সচেতন মানুষ।

বুধবার সকালে সরেজমিনে দেখা যায়, নতুন বান্দুরা বটতলায় প্রতি সপ্তাহের মতো হাট বসেছে। শাক-সবজি, হলুদ-মরিচ, পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র নিয়ে কোনো নিয়ম না মেনে একসাথে বসেছে দোকানিরা। আর সব কিছু এক জায়গায় পেয়ে জনস্রোত যেন দ্বিগুণ হয়ে গেছে। ভিড় দেখে বুঝার উপায় নেই এখানে সামাজিক দূরত্ব মানা হচ্ছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রচার চালানোর পরও এসব হাট বসছে বলে জানিয়েছে স্থানীয়রা।

করোনার প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে ও দূরত্ব নিশ্চিত করতে প্রতিটি কাঁচা বাজার ও পাইকারি বাজার খোলা জায়গায় বসানোর নির্দেশনা দিয়েছে সরকার। তবে এখনো নবাবগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে এ নির্দেশনা মানা হচ্ছে না।

এ ব্যাপারে বান্দুরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিল্লাল মিয়ার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এইচ এম সালাউদ্দিন মনজু বলেন, প্রশাসনের পক্ষ থেকে উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নের চেয়ারম্যানদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে কাঁচাবাজার যেন খোলা স্থানে বা মাঠে করা হয়। এতে সামাজিক দূরত্ব বজায় থাকবে। অন্যদিকে মানুষজনও তাদের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস কিনতে পারবে। প্রশাসনের পাশাপাশি সাধারণ মানুষকে সচেতন হতে হবে। তবে বান্দুরা হাটের ব্যাপারে এখনই খোঁজ নিচ্ছি।

পিডিএসও/হেলাল