কেন্দুয়ার অস্বচ্ছল ৫০০ পরিবারের পাশে কল্যাণী যুব ফাউন্ডেশন

প্রকাশ : ২৯ মার্চ ২০২০, ০৯:৩৫

হুমায়ুন কবির, কেন্দুয়া(নেত্রকোনা)

করোনাভাইরাস সংক্রমন ঠেকাতে অঘোষিত লকডাউন এর মতো পরিস্থিতিতে নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলার অন্তত ৫০০ অনাহারী পরিবারের মুখে খাবার তুলে দিয়েছে কল্যাণী যুব ফাউন্ডেশন নামে একটি সেচ্ছাসেবী সংগঠন। 

‘আমরা যারা তিন বেলা খেতে পারি, তারা দুই বেলা খেয়ে এক বেলার খাবার তুলে দিন পাশের অনাহারীর হাতে’- এই স্লোগানকে সামনে রেখে বর্তমান নিষেধাজ্ঞায় খাদ্য সংকটের আশংকায় অস্বচ্ছল ৫০০ পরিবারের মাঝে নিজ উদ্যোগে চাল, ডাল, আলু, সাবান ও মাস্ক বাড়ি বাড়ি গিয়ে পৌঁছে দিয়েছেন সংগঠনের পরিচালক কল্যাণী হাসান।

শনিবার সকাল থেকে রাত পর্যন্ত কেন্দুয়া উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় থাকা অস্বচ্ছল ও হতদরিদ্র পরিবারের বাড়ি বাড়ি গিয়ে  খাবার বিতরণ করেন তিনি।

এই বিষয়ে কথা হলে কল্যাণী হাসান বলেন, বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস সংক্রমন রোধে বাহিরে না বের হতে সরকারিভাবে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

 বাহিরে বের হতে না পারলে খাদ্যের সংকট দেখা দিবে রিকশাচালক, দিনমজুরও ভিক্ষুকদের পরিবারে।
 তাই আমার সংগঠনের উদ্যোগে প্রতি পরিবারের জন্য চাল, ডাল, আলু, মাস্ক ও সাবান মিলে একটি প্যাকেট করে বিতরণ করলাম।

 এসব প্যাকেট শনিবার সকালে নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে বাড়ি বাড়ি গিয়ে পৌঁছে দিয়েছি। 

এ সময় তিনি আরও বলেন, করোনা সংক্রমন রোধে স্বাস্থ্য বিভাগ ও সরকারি নির্দেশনা মেনে চলতে সকলের প্রতিও তিনি আহবান জানান।