গিলে ফেললো স্বর্ণের চেইন, আটক ৫ নারী প্রতারক

প্রকাশ : ১৪ জুন ২০১৯, ২১:০৭ | আপডেট : ১৪ জুন ২০১৯, ২১:২০

অনলাইন ডেস্ক

নাটোরের বড়াইগ্রামে সংঘবদ্ধ ৫ নারী প্রতারকের একজন স্বর্ণের চেইন ছিনিয়ে নিয়ে গিলে ফেলায় তাদের আটক করেছে পুলিশ। এ সময় স্থানীয়রা তাদেরকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার বনপাড়া এলাকার দুলাল হোসেনের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। আটককৃতরা হলো, পাবনা জেলার আয়েশা বেগম (৫০), আঁখি আক্তার (৩০), তাসলিমা বেগম (২৫), জান্নাত (৩০) ও ফাতেমা আক্তার (১৬)।

পুলিশ মূল অভিযুক্ত আয়েশা বেগমের পেট এক্সরে ও আল্ট্রাসনোগ্রাফি করতে চাইলে চেইন গিলে খেয়ে ফেলার কথা স্বীকার করে। বনপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পরিদর্শক নাজমুল হক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, আটক ৫ নারীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বড়াইগ্রাম থানা পুলিশ হেফাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। 

স্থানীয় পৌর কাউন্সিলর শরীফুন্নেছা শিরিন জানান, দুপুরে সাহায্য চাওয়ার নামে ৫ নারী উপজেলার দুলাল হোসেনের বাড়িতে যায়। সেখানে পানি পান করতে চাইলে বেড়াতে আসা দুলালের শ্বাশুড়ি হাসিনা বেগম (৫৫) তাদের জন্য পানি আনে।

এ সময় আয়েশা নামে প্রতারক চক্রের সদস্য আচমকা হাসিনার গলার চেইন ছিনিয়ে নিয়ে গিলে ফেলে এবং দ্রুত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে হাসিনার চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে তাদেরকে আটক করে পুলিশে খবর দেয়।

পিডিএসও/তাজ