হালদায় ডিম ছেড়েছে মা মাছ

প্রকাশ : ২৬ মে ২০১৯, ১০:২১

অনলাইন ডেস্ক

এশিয়ার বিখ্যাত প্রাকৃতিক মৎস্য প্রজনন ক্ষেত্র হালদা নদীতে মা মাছ ডিম ছেড়েছে। শনিবার রাত সাড়ে ৯টার পরে হালদা নদীতে ডিম সংগ্রহের অপেক্ষায় থাকা মানুষরা ডিমের দেখা পান। ডিম ছাড়ার খবর পেয়ে খলিফার ঘোনা, রামদাশহাট, মুন্সির হাট থেকে মদুনাঘাটসহ বিভিন্ন স্থানে ডিম সংগ্রহ করা শুরু করেন এতদিন ধরে অপেক্ষায় থাকা ডিম সংগ্রহকারীরা।

এর আগে হালদা নদীতে শনিবার সকাল থেকে নমুনা ডিম দেখা যায়। তখন মৎস্য অফিস জানায়, হালদায় জোয়ার বা পাহাড়ী ঢলের সৃষ্টি হলেই রুই, কাতল, মৃগেল, কালা বাউশ মাছের ডিম ছাড়তে পারে। এর আগেও অমাবশ্যায় হালদা নদীর জোয়ারে ও ঘূর্ণিঝড় ফণির প্রভাবে মৎস্য প্রজনন ক্ষেত্র হালদা নদীতে মা মাছের নমুনা ডিম পাওয়া যায়। সেই সময়ে ডিম সংগ্রহকারীরা হালদা নদীতে ডিম সংগ্রহ করে।

হাটহাজারী উপজেলার মাছোয়াঘোনাসহ বিভিন্ন এলাকার ডিম সংগ্রহকারীরা জানান, এতদিন পুরোদমে ডিম না দেয়ার কারণে হালদা নদীতে জাল ফেলেও পর্যাপ্ত পরিমাণে ডিম পাওয়া যায়নি। প্রকৃতি অনুকুলে না থাকায় এতদিনে মা মাছ পর্যাপ্ত ডিম ছাড়েনি। আজ রাতে উপযুক্ত পরিবেশ পাওয়ায় মা মাছ পর্যাপ্ত পরিমাণ ডিম ছেড়েছে।

তারা আরো জানান, মা মাছ সাধারণত অমাবস্যা, অষ্টমী ও পূর্ণিমা তিথিতে নদীতে ডিম ছাড়ে। গত পূর্ণিমায় তেমন বর্ষণ হয়নি। এবার অষ্টমী তিথিতে বজ্রসহ প্রবল বর্ষণ হয়েছে। তাই নদীতে ঢলের সৃষ্টি হলে মা মাছ ডিম ছাড়তে পারে এমন আশায় ডিম সংগ্রহকারীরা হালদা নদীতে অপেক্ষা করছিল। শুক্রবার রাত সাড়ে ৮টায় জোয়ার শুরু হয়। আর ভাটার সময় নদীতে ঢলের সৃষ্টি হলে শনিবার রাতে মা মাছ ডিম ছাড়ে।

পিডিএসও/হেলাল